আজিজুল ইসলাম বারী, লালমনিরহাটঃ প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস (কোভিড ১৯) সংক্রমণরোধে লালমনিরহাটে আসা এবং যাওয়ায় নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে জেলা প্রশাসন।

বুধবার (০৮এপ্রিল) সকালে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত এ সম্পর্কিত একটি গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেন লালমনিরহাট জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ও প্রশাসক আবু জাফর।

গণবিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত জেলায় সব ধরনের যানবাহন প্রবেশ ও বের হওয়া এবং সাপ্তাহিক সব হাট-বাজার, প্রতিষ্ঠান ও গণপরিবহন বন্ধ ঘোষণা করা হলো। সেজন্য জেলার সব প্রবেশ ও বহির্গমন পথে চেকপোস্ট বসানো হবে। অত্যাবশ্যকীয় নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দোকান ও কৃষি সরঞ্জাম পণ্যের দোকান সকাল ৭টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত খোলা থাকবে। ওষুধের দোকান, হাসপাতাল ও ক্লিনিক সারাদিন খোলা থাকবে। তবে তা অবশ্যই সামাজিক দুরত্ব বজায় ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।

এ আদেশ অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এ আদেশ অনতিবিলম্বে কার্যকর করা হবে।

তবে মেডিক্যাল সার্ভিস, অ্যাম্বুলেন্স, ফায়ার সার্ভিস, কৃষি নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের যানবাহন, সংবাদপত্র, প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারীবাহিনী, সেনাবাহিনী ও জরুরি ত্রাণ পরিবহনে ব্যবহৃত যানবাহন এ আদেশের বাইরে থাকবে।

গণবিজ্ঞপ্তি প্রসঙ্গে জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ও জেলা প্রশাসক আবু জাফর বলেন, করোনা ভাইরাস সংক্রমণরোধে আগের জারি করা নির্দেশনাবলীর সঙ্গে আরো কয়েকটি বিষয় যুক্ত করা হয়েছে। যা তাৎক্ষণিক কার্যকর করা হয়েছে। প্রবেশ ও বাহির পথে চেকপোস্ট বসানো হচ্ছে। এটা বাস্তবায়ন করতে ভ্রাম্যমাণ আদালতসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মাঠে রয়েছে। এজন্য গণবিজ্ঞপ্তি মেনে চলতে জেলাবাসীর প্রতি আহবান জানান তিনি।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য