মহামারী আকারে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসে ভারতেও আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৩ হাজারের কাছাকাছি পৌঁছে গেছে বলে দেশটির কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

শুক্রবার সকাল থেকে শনিবার সকাল পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় দেশটির ৬০১ জনের দেহে নভেল করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে; এ সময়ের মধ্যে কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত ১২ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে এনডিটিভি।

সব মিলিয়ে দেশটিতে মৃতের সংখ্যা ৬৮ তে পৌঁছেছে।

এদিকে জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের হিসাব অনুযায়ী ভারতে আক্রান্তের সংখ্যা এরই মধ্যে ৩ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। তাদের দেওয়া সর্বশেষ তথ্যে দেশটিতে এখন কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা ৩ হাজার ৮২।

দেশজুড়ে লকডাউনের মধ্যে আক্রান্ত-মৃতের সংখ্যায় এমন উল্লম্ফন দেশটির নীতিনির্ধারকদের শঙ্কা বাড়িয়েছে; এ কারণে লকডাউনের মেয়াদ বাড়ানোরও চিন্তাভাবনা চলছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

আক্রান্তদের মধ্যে ১৮৪ জনের সুস্থ হয়ে বাড়ি ফেরার খবর দিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দেয়া হিসাবে এখন পর্যন্ত মহারাষ্ট্রেই সবচেয়ে বেশি আক্রান্তের সন্ধান পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছে আনন্দবাজার। নতুন আক্রান্ত ৮৮ সহ সেখানে মোট ৪২৩ জনের কোভিড-১৯ রোগ ধরা পড়েছে।

তামিল নাডুতে মোট আক্রান্ত ৪১১। দিল্লিতে ৩৮৬, কেরালায় ২৯৫, রাজস্থানে ১৭৯, উত্তরপ্রদেশে ১৭৪, অন্ধ্রে ১৬১ এবং তেলেঙ্গানায় ১৫৮ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে বলে শুক্রবার জানিয়েছে ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

তাদের হিসাবে পশ্চিমবঙ্গে ৬৩ জন আক্রান্ত ও ৩ জন মৃত জানানো হলেও মমতা বন্দোপাধ্যায়ের সরকার বলছে, তাদের রাজ্যে এখন চিকিৎসাধীন আক্রান্তের সংখ্যা ৩৮।

একদিনে ৬০১ জন যোগ হওয়ায় করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যায় ভারত তাদের সীমান্তবর্তী দেশ পাকিস্তানকেও ছাড়িয়ে গেছে।

শনিবার সকাল পর্যন্ত পাকিস্তানে আক্রান্তের সংখ্যা দুই হাজার ৭০০ ছাড়িয়েছে, মৃত্যু হয়েছে ৪০ জনের।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য