দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুর জেলার চিরিরবন্দর উপজেলায় কৃষিকাজে নারীদের অংশগ্রহণ পুরুষের থেকে কোনো অংশে কম নয়। বরং কোনো কোনো ক্ষেত্রে পুরুষের চেয়ে নারীর অংশগ্রহণই বেশি। তবে নারীদের শ্রম অনুযায়ী দেওয়া হচ্ছে না সঠিক মজুরি। পুরুষ শ্রমিকের মজুরি যেখানে ৩৫০-৪০০ টাকা সেখানে নারী শ্রমিকেরা পাচ্ছেন মাত্র ১৫০ টাকা।

মাঠে কাজ করতে আসা সাইতাড়া গ্রামের নারী শ্রমিকেরা জানান, কি করবো ভাই কাজ না করলে যে সংসার চলে না। তাই যখন যে কাজ পাই তখন সেটা করি। আমাদের এক একটি পরিবারে ৫-৬ জন সদস্য। তার মধ্যে একজনের দিন মজুরি দিয়ে সংসার চলেনা। তাই আমরা কাজে এসেছি যা আয় হয় তা সংসারে ব্যয় করি।

তারা আরও আক্ষেপ করে বলেন, সারাদিন পরিশ্রম করে ১৫০ টাকা পাই। সকাল থেকে শুরু করে সন্ধ্যা পর্যন্ত কাজ করতে হয়। আমাদের দেখার মতো কেউ নেই। পুরুষ মানুষ সারাদিন কাজ করে ৩৫০-৪০০ টাকা পায়, আমরা নারীরা কাজ করে ১৫০ টাকা পাই।

সরেজমিনে দেখা যায়, মাঠে ১০-১৫ জন নারী আলু তোলার কাজ করছে। তাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, তাদের সবার দিন মজুরি ১৫০ টাকা।
মাঠে আলু তোলার কাজ করতে আসা নারী শ্রমিকরাা বলেন, মাঠে কাজ করতে আসা সবাই দরিদ্র পরিবার থেকে এসেছে। সকাল ৮টা থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত জমিতে আলু তোলার কাজ করতে হয়। কাজ শেষে সারাদিনের মজুরি ১৫০ টাকা দেয়া হয়। তবে অন্যান্য এলাকায় ২০০-২৫০ টাকা দিন মজুরি পান নারী শ্রমিকরা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য