মোঃ জাকির হোসেন, নীলফামারী প্রতিনিধি ॥ করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে পৌরশহরে জীবানুনাশক ছিটানোর কার্যক্রম শুরু হয়েছে নীলফামারী পৌরসভা কর্তৃপক্ষ।

সোমবার সকাল ১০টার দিকে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে জীবানুনাশক ছিটিয়ে কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক মো. হাফিজুর রহমান চৌধুরী। এসময় পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মোখলেছুর রহমান, স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক মো. মোতালেব হোসেন সরকার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো. আজাহারুল ইসলাম, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এলিনা আকতার, পৌরসভার সচিব মো. মশিউর রহমান কার্যক্রমে অংশ গ্রহণ করেন।

পরে শহরের পুলিশ সুপারের কার্য্যালয় চত্ত্বর, আদালত চত্ত্বর, সদর থানা চত্ত্বর, পৌরসভা কার্য্যালয় চত্ত্বর, কেন্দ্রিয় বাস টার্মিনাল, বড়বাজারসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় জীবানু নাশক ও মশা নিধন ওষুধ ছিটানো হয়।

পৌরসভার ওই কার্যক্রমে দায়িত্ব পালন করছেন ২১ জন কর্মী। ব্যবহার করা হচ্ছে ১২টি সাধারণ ও তিনটি ফোগার যন্ত্র। শহর পরিচ্ছন্নতার কাজে নিয়োগ করা হয়েছে ৭০জন পরিচ্ছন্ন কর্মী বলে জানান পৌরসভার সচিব মো. মশিউর রহমান।

নীলফামারী পৌরসভার মেয়র দেওয়ান কামাল আহমেদ ভারত সফর শেষে সম্প্রতি দেশে ফিরে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকলেও করোনা মোকাবেলায় মুঠোফোনের মাধ্যমে পৌরসভার সকল কার্যক্রম পরিচালনা করছেন। এবিষয়ে মুঠোফোনে কথা হলে মেয়র বলেন, ‘আমি হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছি। কিন্তু পৌরসভার সকল কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে। মুঠোফোনর মাধ্যমে এসব কার্যক্রম পরিচালনা করছি।

করোনাভাইরাস সংক্রামন এবং ডেঙ্গু মোকাবেলো পৌর শহর জুড়ে জীবানুনাশক ছিটানোর পাশাপাশি শহরের ২০টি গুরুত্বপূর্ণ মোড়ে হাত ধোয়ার জন্য ‘হ্যান্ড ওয়াসিং’ কার্যক্রম শুরু করেছি। সচেতনতা সৃষ্টির জন্য ৩০ হাজার লিফলেট বিতরণ এবং প্রতিটি ওয়ার্ডের পাড়ামহল্লায় ফেস্টুইন স্থাপন করা হয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত এসব কার্যক্রম চলমান থাকবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য