ইসরায়েলের প্রেসিডেন্ট রুবেন রিভলিন মধ্যপন্থি দল ব্লু অ্যান্ড হোয়াইট পার্টির নেতা বেনি গান্টজকে নতুন সরকার গড়ার আহ্বান জানাবেন বলে জানিয়েছে প্রেসিডেন্টের কার্যালয়।

মার্চের নির্বাচনে বর্তমান প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর দল লিকুদের চেয়ে কম ভোট পেলেও গান্টজ কট্টর ডানপন্থি দল ইসরায়েল বেইতেনু এবং আরবদের জয়েন্ট লিস্টের সমর্থন লাভ করেছেন।

পার্লামেন্টের সংখ্যাগরিষ্ঠ সাংসদদের সমর্থন বিবেচনায় ব্লু অ্যান্ড হোয়াইট পার্টির নেতাকেই সরকার গড়ার আহ্বান জানানো হচ্ছে, রোববার রিভলিনের কার্যালয়ের বিবৃতিতে এমনটাই বলা হয়েছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

স্থিতিশীল সরকারের জন্য ইসরায়েলে এক বছরের মধ্যে তিনটি সাধারণ নির্বাচন হয়েছে। প্রতিটি নির্বাচনে লিকুদ ও ব্লু অ্যান্ড হোয়াইটের মধ্যে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হলেও কোনো দলই তাদের সুস্পষ্ট প্রাধান্যের প্রমাণ দিতে পারেনি।

রোববার ইসরায়েলের প্রেসিডেন্ট রিভলিন ১২০ আসনের পার্লামেন্ট নেসেটে আসন জেতা দলগুলোর শীর্ষ নেতাদের সঙ্গে সরকার গঠন নিয়ে বৈঠকে বসেছিলেন।

সেখানেই বিপরীত দর্শনের দুই দল অ্যাভিদগর লিবারম্যানের ইসরায়েল বেইতেনু এবং আরবদের জয়েন্ট লিস্ট গান্টজকে সমর্থন দেয়।

“আলোচনা শেষে, নেসেটের ৬১ সদস্য গান্টজের প্রতি সমর্থন জানিয়েছেন। বিরোধীতা করেছে ৫৮ জন, যারা বর্তমান প্রধানমন্ত্রী লিকুদের নেতানিয়াহুকে পছন্দ করেছিলেন। একজন কোনো পক্ষেই যাননি।

“আগামীকাল (সোমবার) দুপুরের দিকে প্রেসিডেন্ট ব্লু অ্যান্ড হোয়াইট পার্টির নেতাকে সরকার গড়ার আনুষ্ঠানিক আহ্বান জানাবেন,” রোববার প্রেসিডেন্ট কার্যালয়ের বিবৃতিতে এমনটাই বলা হয়েছে।

দুর্নীতির দায়ে বিচারের মুখে থাকা নেতানিয়াহুর জন্য এ ঘোষণা বড় ধরনের ধাক্কা, বলছেন পর্যবেক্ষকরা।

ইসরায়েলের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশিদিন ক্ষমতায় থাকা এ নেতা গত বছর দুই দফা সরকার গড়ার সুযোগ পেয়েও ব্যর্থ হয়েছিলেন।

ঘুষ গ্রহণ, জালিয়াতি ও বিশ্বাসভঙ্গের অভিযোগে মঙ্গলবার থেকে তার বিচার শুরু হওয়ার কথা থাকলেও, করোনাভাইরাসের কারণে সৃষ্ট জরুরি অবস্থায় তা পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে।

নেতানিয়াহু অবশ্য শুরু থেকেই তার বিরুদ্ধে ওঠা এসব অভিযোগকে ‘উইচ হান্ট’ হিসেবে অভিহিত করে আসছেন; কোনো ধরনের অন্যায়ে জড়িত থাকার অভিযোগও অস্বীকার করেছেন তিনি।

করোনাভাইরাস মোকাবেলায় নিজের নেতৃত্বে ছয় মাসের জন্য একটি ‘জাতীয় জরুরি সরকার’ গঠনেরও প্রস্তাব দিয়েছিলেন এ ডানপন্থি নেতা।

গান্টজ তাতে সাড়া না দিলে প্রস্তাবটি মুখ থুবড়ে পড়ে বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

রোববার কট্টর ডানপন্থি ইসরায়েল বেইতেনু বলেছে, আরেকটি নির্বাচন ঠেকানোর লক্ষ্যেই তারা ব্লু অ্যান্ড হোয়াইটকে সমর্থন দিয়েছে।

আর আরবদের জয়েন্ট লিস্ট জানিয়েছে, তারা গান্টজের সরকারে থাকবে না; তবে পার্লামেন্টে নেতানিয়াহু ও ডানপন্থিদের আধিপত্য ঠেকাতে তাদেরকে (ব্লু অ্যান্ড হোয়াইটকে) পেছন থেকে সমর্থন দিয়ে যাবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য