সংবাদ সম্মেলনেঃ ৬ ফেব্রুয়ারী বৃহস্পতিবার দিনাজপুর প্রেসক্লাবের এক সাংবাদিক সম্মেলনে দিনাজপুর শহরের পশ্চিম বালুয়াডাঙ্গা মহল্লার প্রাক্তন পুলিশ কন্সটেবল মোঃ ছলিম উদ্দিনের কন্যা ২ সন্তানের জননীয় আকলিমা খাতুন বলেন, আমার স্বামী বিরল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ড্রাইভার আদিল হোসেন আমাকে নির্যাতন করে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছে।

এখন আমি দুটি সন্তান নিয়ে রাস্তায় রাস্তায় ঘুড়ে বেড়াচ্ছি। এব্যাপারে সিভিল সার্জনসহ বিভিন্ন স্থানে অভিযোগ করেও কোন সুফল পাই নি। আমি নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করলে বিজ্ঞ আদলতের নির্দেশে তাকে জেল হাজতে পাঠানো হয়। মোটা অংকের টাকা দিয়ে অসুখের অজুহাত দেখিয়ে ছুটি নিয়ে বেতন ভাতা ভোগ করছে।

সরকারি বিধি অনুযায়ী তাকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করার কথা থাকলেও তাকে এখন পর্যন্ত বরখাস্ত করা হয় নি। আমি চাই তার সাথে সংসার করতে পারি কিন্তু তার টাকার গরমে তার মা, মামা, বোন, দুলাভাই এরা প্রতিদিন আমাকে মামলা তুলে নিতে হুমকি ধামকি দিচ্ছে। আমরা বর্তমানে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। এব্যাপারে পুলিশ সুপারের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

সংবাদ সম্মেলনে আকলিমা খাতুনের মা আনোয়ারা বেগম, ভাবি আয়েশা বেগম উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য