ইসরায়েল ও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে নিরাপত্তাসহ সব ধরনের সম্পর্ক ছিন্ন করেছে ফিলিস্তিনি কর্তৃপক্ষ।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের ইসরায়েল ঘেঁষা মধ্যপ্রাচ্য শান্তি পরিকল্পনা প্রত্যাখ্যানের পর শনিবার সম্পর্ক ছিন্নের এ ঘোষণা দিয়েছেন ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস।

কায়রোতে আরব লিগের বৈঠকে আব্বাস এ ঘোষণা দেন। আরব লিগ ট্রাম্পের মধ্যপ্রাচ্য শান্তি পরিকল্পনার বিরুদ্ধে ফিলিস্তিনের অবস্থানকে সমর্থন দিয়েছে।

আর ট্রাম্পের পরিকল্পনায় সায় দিয়েছেন ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু। এ পরিকল্পনায় অধিকৃত অঞ্চলের ইহুদি বসতি বাদ দিয়ে এবং প্রায় পুরোপুরি ইসরায়েলের নিয়ন্ত্রণের অধীনে একটি অসামরিক ফিলিস্তিন রাষ্ট্র গড়ার কথা বলা হয়েছে।

ট্রাম্পের এ পরিকল্পনা নিয়ে আরব লিগ একদিনের জরুরি বৈঠক করেছে।আর সেখানেই শনিবারের ভাষণে ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস বলেছেন,“আমরা ইসরায়েলি পক্ষকে অবহিত করেছি যে… ইসরায়েল এবং যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে ফিলিস্তিনের নিরাপত্তা সম্পর্কসহ সব ধরনের সম্পর্কই আর থাকবে না।”

ইসরায়েলের পক্ষ থেকে ফিলিস্তিনের এ ঘোষণার ব্যাপারে তাৎক্ষণিক কোনো প্রতিক্রিয়া জানানো হয়নি।

ইসরায়েল এবং ফিলিস্তিন কর্তৃপক্ষের নিরাপত্তা বাহিনীর মধ্যে দীর্ঘদিন ধরেই সহযোগিতামূলক সম্পর্ক আছে। বিশেষ করে অধিকৃত পশ্চিম তীর এবং ফিলিস্তিনি অঞ্চলগুলো পাহারা দেওয়ার ক্ষেত্রে।

তাছাড়া, মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা সিআইএ’র সঙ্গেও ফিলিস্তিন কর্তৃপক্ষের গোয়েন্দা তথ্য দিয়ে সহযোগিতা করা নিয়ে চুক্তি আছে। ২০১৭ সালে ফিলিস্তিন ট্রাম্প প্রশাসনের শান্তি প্রচেষ্টা বয়কট করার পরও এ সম্পর্ক অটুট ছিল।

এবার তা ছিন্ন করার ঘোষণা দিলেন আব্বাস। তিনি এমনকী ট্রাম্পের শান্তি পরিকল্পনা নিয়ে ফোনে তার সঙ্গে আলাপ করেননি এবং পরিকল্পনাটি পড়ে দেখার জন্য সেটির কপিও গ্রহণ করেননি।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য