দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুরের সিভিল সার্জন ডাঃ আব্দুস কুদ্দুছ বলেছেন, কুষ্ঠ রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিরাও সমাজে স্বাভাবিকভাবে জীবন যাপন করতে পারে এবং সমাজের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করার অধিকার রাখে।

সকল সংক্রামক ব্যধির মধ্যে কুষ্ঠ সবচেয়ে কম সংক্রামক। এ রোগের লক্ষ্যণ হলো চামড়ায় অবশ হালকা রঙের দাগ, দাগগুলো চুলকানি বিহীন ও সেখানে ঘাম হয় না।

তাহে বা পায়ে সংবেদনশীলতা অনুভূতি হ্রাস পাওয়া যায। দেশের প্রতিটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও অন্যান্য হাসপাতালের কুষ্ঠ চিকিৎসা কেন্দ্রে বিনামূল্যে এ রোগের চিকিৎসা পাওয়া যায়।

“প্রতিবন্ধিতা ও বৈষম্যহীন স্বদেশ, কুষ্ঠমুক্ত হোক আমাদের বাংলাদেশ” এবারের প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে ২৬ জানুয়ারী রোববার সিভিল সার্জন কার্যালয় আয়োজিত বিশ্বি কুষ্ঠ দিবস উপলক্ষ্যে বর্ণ্যাঢ্য র‌্যালী ও আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথাগুলো বলেন

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য