যুক্তরাষ্ট্রের সেনা অবস্থান থাকা কেনিয়ার একটি সামরিক ঘাঁটিতে হামলা চালিয়েছে জঙ্গিগোষ্ঠী আল শাবাব। স্থানীয় সময় রবিবার ভোর সাড়ে পাঁচটার দিকে এই হামলা চালানো হয়েছে। হামলা প্রতিহতের দাবি করে কেনিয়ার সেনাবাহিনী চার ‘সন্ত্রাসী’র মরদেহ উদ্ধারের কথা জানিয়েছে। তবে আল শাবাবের দাবি ঘাঁটিটির একাংশ কার্যকরভাবে নিয়ন্ত্রণে রেখেছে তাদের যোদ্ধারা।

আল কায়েদা সমর্থিত জঙ্গিগোষ্ঠী আল শাবাবের শক্ত অবস্থান রয়েছে সোমালিয়ায়। দেশটির আল শাবাব বিরোধী লড়াইয়ে কেনিয়ার সেনা সমর্থন রয়েছে। বছর খানেক আগে মোগাদিসু থেকে বিতাড়িত হলেও গোষ্ঠীটি প্রায়ই বোমা ও বন্দুক হামলা চালিয়ে থাকে। গত বছর কেনিয়ার নাইরোবিতে তাদের চালানো এক হামলায় ২১ জন নিহত হয়।

রবিবার কেনিয়ার প্রতিরক্ষা বাহিনীর (কেডিএফ) এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, লামু কাউন্টিতে অবস্থিত মান্দা বিমানঘাঁটির নিরাপত্তা ব্যবস্থা ভেঙে ফেলার চেষ্টা সফলভাবে প্রতিহত করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত চার সন্ত্রাসীর মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। বিমানঘাঁটি এখন নিরাপদ।

সেনাবাহিনীর বিবৃতির আগে আল শাবাবের পক্ষ থেকে দাবি করা হয় তাদের হামলায় ঘাঁটিটিতে থাকা মার্কিন ও কেনিয়ার সেনাবাহিনীর মারাত্মক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। আল কায়েদা সমর্থিত গোষ্ঠীটির এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘মুজাহিদিন যোদ্ধারা প্রচ্ছন্নভাবে শত্রুদের মধ্যে প্রবেশ করে আর চরম সুরক্ষিত সামরিক ঘাঁটিতে সফলভাবে প্রবেশ করে এবং এখন কার্যকরভাবে ঘাঁটিটির একাংশের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে’।

এক প্রত্যক্ষদর্শী জানিয়েছেন, হামলার পর আকাশ কালো ধোঁয়ায় ঢেকে যায়।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য