দিনাজপুর সংবাদাতাঃ সকালের কুয়াশা কিংবা সন্ধ্যার হিমেল বাতাসে কদর বেড়েছে ভাপা আর চিতই পিঠার। গরম আর সুগন্ধি ধোঁয়ায় মন আনচান করে ওঠে সবার। এমনি পিঠা বিক্রির আমেজ চলছে দিনাজপুরের খানসামা উপজেলার ছোট-বড় সব হাটবাজারগুলোতে।

শীতকালীন সময়ে নিম্ন আয়ের অনেক মানুষের উপার্জনের একমাত্র অবলম্বন পিঠার ব্যবসা। খোলা আকাশের নিচে ভোরবেলা কিংবা বিকেলবেলা দোকানীরা নানান পিঠার পসরা সাজিয়ে বসছে। এসব ভাপা পিঠার দোকানিদের দেখে মনে হয় শীত যেন হাতছানি দিয়ে ডাকছে।

গ্রামীণ শহর পাকেরহাটে পিঠা খেতে আসা কামরুজ্জামান জানান, শীতে ভাপা পিঠা খেতে ভালোই লাগে। এটি অত্যন্ত জনপ্রিয় ও সুস্বাদু ।

উপজেলার ছোট-বড় সব বাজারগুলোতে এসব দোকানের পাশে দাঁড়িয়ে কিংবা বসে পিঠা খাচ্ছেন সব বয়সী মানুষ।

উপজেলায় বাণিজ্যিক প্রাণকেন্দ্র পাকেরহাট হাঁসহাটি রোডে আনিসা বেগম নামে এক পিঠা দোকানী জানান, প্রতিটি পিঠা ৫টাকা করে বিক্রি করে আটা ও খড়ি খরচ খরচ বাদে প্রায় ৪-৫ শ টাকা আয় হয়।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য