অ্যান্টার্কটিকার পথে থাকা চিলির একটি সামরিক উড়োজাহাজের সঙ্গে নিয়ন্ত্রণকক্ষের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

চিলির বিমানবাহিনীর বিবৃতির বরাতে বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, ওই পরিবহন বিমানে ৩৮ জন আরোহী ছিলেন।

রয়টার্স জানিয়েছে, চিলির দক্ষিণের শহর পুনটা অ্যারেনাস থেকে স্থানীয় সময় সোমবার বিকাল ৪টা ৫৫ মিনিটে অ্যান্টার্কটিকার পথে রওনা হয় সি-১৩০ হারকিউলিস উড়োজাহাজটি। সন্ধ্যা ৬টার কিছুক্ষণ পর উড়োজাহাজটির সঙ্গে নিয়ন্ত্রণ কক্ষের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

উড়োজাহাজের আরোহীদের মধ্যে ২১ জন ছিলেন যাত্রী, বাকি ১৭ জন ক্রু। আরোহীদের মধ্যে তিনজন বেসামরিক নাগরিকও ছিলেন। ওই বিমানে করে অ্যান্টার্কটিকার কিং জর্জ দ্বীপে চিলির ঘাঁটিতে রসদ নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল।

চিলির বিমানবাহিনীর জেনারেল এদুয়ার্দো মোকেইরা স্থানীয় সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়ার আগে উড়োজাহাজের পাইলট কোনো ধরনের বিপদ সংকেত দেননি।

উড়োজাহাজ ও এর নিখোঁজ আরোহীদের খোঁজে তল্লাশি ও উদ্ধার অভিযান শুরু করা হয়েছে বলে জানিয়েছে চিলির বিমানবাহিনী।

অ্যান্টার্কটিকা অঞ্চলের ১২ লাখ বর্গকিলোমিটার এলাকা চিলির নিয়ন্ত্রণে আছে। সেখানে দেশটির নয়টি ঘাঁটি আছে, যা বিশ্বের যে কোনো দেশের চেয়েই বেশি।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য