লন্ডনে অ্যাপভিত্তিক ট্যাক্সি সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান উবার এর লাইসেন্স বাতিল করা হয়েছে। সুরক্ষা ও নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ হওয়ায় গত দুই বছরের মধ্যে দ্বিতীয়বারের মত এর লাইসেন্স বাতিল করলো কর্তৃপক্ষ। খবর রয়টার্স’র।

ট্রান্সপোর্ট ফর লন্ডন (টিএফএল) জানিয়েছে, সম্প্রতি উবার অননুমোদিত ড্রাইভারদেরকে তাদের ছবি অনুমোদিত ড্রাইভারদের একাউন্টে আপলোড করার অনুমতি দিয়েছে। এর ফলে উবারের অনুমোদিত ড্রাইভাররা কোন ট্রিপে ব্যস্ত থাকলে তাদের বদলে অননুমোদিত ড্রাইভাররা উবারের মাধ্যমে যাত্রী পরিবহন করতে পারছে। অন্তত ১৪ হাজার ট্রিপের ক্ষেত্রে এমনটা ঘটেছে বলে জানিয়েছে টিএফএল।

টিএফএল আরও জানায়, উবারের নতুন এই সিস্টেমের ফলে এমন বেশ কয়েকটি ঘটনা ঘটেছে যা যাত্রীদের সুরক্ষা ও নিরাপত্তার জন্য হুমকি। এমন ঘটনা ভবিষ্যতেও ঘটবে না সে বিষয়ে টিএফএল কোন নিশ্চয়তা না পাওয়ায় উবারের লাইসেন্স বাতিলের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

এদিকে তাৎক্ষনিক প্রতিক্রিয়ায় উবার কর্তৃপক্ষ এই সিদ্ধান্তকে চরম ভুল বলে অভিহিত করেছে। তারা এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল করবে বলেও নিশ্চিত করেছে।

উবারের উত্তর ও পূর্বাঞ্চলীয় প্রধান জেমি হেইহোড বলেছেন, ‘গত মাসে আমরা প্রত্যেক ড্রাইভারের তথ্য নিরীক্ষা করেছি এবং আমাদের প্রক্রিয়াকে আগের চেয়ে শক্তিশালী করেছি।’ ড্রাইভারদের চিহ্নিত করতে উবারের একটি শক্তিশালী সিস্টেম ইতোমধ্যে রয়েছে এবং শীঘ্রই ফেস ম্যাচিং প্রক্রিয়া চালু করা হবে বলে জানান জেমি হেইহোড।

সোমবার থেকে উবারের লাইসেন্স বাতিল কার্যকর হলেও এ ব্যাপারে উবার আদালতের দ্বারস্থ হতে পারবে। তাছাড়া আগামী এক মাস লন্ডনে তারা তাদের কার্যক্রম অব্যাহত রাখতে পারবে। এই সময়ে উবার অনুমোদিত ৪৫ হাজার ট্যাক্সি লন্ডনের রাস্তায় নামতে পারবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য