পাকিস্তানের কোয়েটা শহরে এক বিস্ফোরণে দেশটির সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (ফ্রন্টিয়ার কর্পস-এফসি) অন্তত তিন কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও চার জন। তাদের সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। দেশটির আধাসামরিক বাহিনীর একজন মুখপাত্র জানিয়েছেন, শুক্রবার (১৫ নভেম্বর) সন্ধ্যায় কুচলাক বাইপাস এলাকায় এফসির গাড়ি লক্ষ্য করে একটি ইম্প্রোভাইজড এক্সপ্লোসিভ ডিভাইসের (আইইডি) বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। এখনও কোনও গোষ্ঠী এ হামলার দায় স্বীকার করেনি।

গত মাসে এই শহরে দুইবার আইনপ্রয়োগকারী সংস্থার কর্মকর্তাদের ওপর হামলা চালানো হয়। ২১ অক্টোবর কোয়েটার স্পিনি রোডে বিস্ফোরণে কমপক্ষে দুই পুলিশ সদস্য এবং একাধিক বেসামরিক নাগরিক আহত হয়। এর আগে ১৫ অক্টোবর কোয়েটার ব্যস্ত সড়ক ডাবল রোডে একটি বোমা বিস্ফোরণে র‍্যাপিড রেসপন্স ফোর্সের এক স্নাইপার নিহত এবং পাঁচ নিরাপত্তা কর্মকর্তাসহ দশজন আহত হন।

কুচলাক পুলিশ স্টেশনের একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন, শুক্রবারের শক্তিশালী বিস্ফোরণে হতাহতরা গজাবন্দ স্কাউটস সদর দফতরের দিকে যাচ্ছিলেন। নিরাপত্তা কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ‘সন্ত্রাসীরা রাস্তার পাশে বিস্ফোরক বোঝাই একটি মোটরসাইকেল পার্ক করে রেখেছিল। পরে এফসি সেনাদের গাড়ি ওই এলাকা অতিক্রম করার সময় রিমোট কন্ট্রোলের সাহায্যে বিস্ফোরণ ঘটানো হয়।’

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য