দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের অধীনে ২০১৯ সালের জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) পরীক্ষা শনিবার (২ নভেম্বর) শুরু হয়েছে। পরীক্ষার প্রথম দিন বাংলা পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রথম দিনের পরীক্ষায় ৫ হাজার ৮২৪ জন পরীক্ষার্থী অনুপস্থিত ছিল। এছাড়া কুড়িগ্রাম জেলায় এক পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের উপ-পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মো. মানিক হোসেন জানান, ২০১৯ সালের জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) পরীক্ষার প্রথম দিন বাংলা পরীক্ষা সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে অনুষ্ঠিত হয়েছে। বাংলা পরীক্ষায় ২ লাখ ৪২ হাজার ৫৪৩ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ২ লাখ ৩৬ হাজার ৭১৯ জন উপস্থিত ছিল এবং ৫ হাজার ৫৮৪ জন পরীক্ষার্থী অনুপস্থিত ছিল। পরীক্ষায় অনুপস্থিতির হার ছিল ২ দশমিক ৪০ শতাংশ। ওই দিনের পরীক্ষায় কুড়িগ্রাম জেলায় এক পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

অনুপস্থিত পরীক্ষার্থীদের মধ্যে রংপুর জেলায় ১৫৬২ জন, গাইবান্ধা জেলায় ৭৩০, নীলফামারীতে ৬১১, কুড়িগ্রামে ৭৫৭, লালমনিরহাটে ৪২০, দিনাজপুরে ৭৮৫, ঠাকুরগাঁয়ে ৫৫১ ও পঞ্চগড় জেলায় ৪০৮ জন।

এদিকে জেএসসি পরীক্ষার প্রথম সকাল সাড়ে ১০টায় দিনাজপুর জিলা স্কুল, দিনাজপুর উচ্চ বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্রসহ কয়েকটি কেন্দ্র পরিদর্শন করেন দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান প্রফেসর মো. আবু বকর সিদ্দিক, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক প্রফেসর মো. তোফাজ্জুর রহমান, সচিব মো. আমিনুল হক সরকার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহফজ জামান আশরাফ। এ সময় দিনাজপুর জিলা স্কুলের প্রধান শিক্ষক আখতারা পারভীনসহ সংশ্লিষ্ট বিদ্যালয়ের অন্যান্য শিক্ষক ও শিক্ষিকাগণ উপস্থিত ছিলেন।

পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান প্রফেসর মো. আবু বকর সিদ্দিক ও পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক প্রফেসর মো. তোফাজ্জুর রহমান জানান, সুষ্ঠু ও সুন্দর পরিবেশে পরীক্ষা অনুষ্ঠানের লক্ষ্যে সব ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রয়োজনীয় সব সহযোগিতা দেয়া হয়েছে বলেও জানান তারা।

উল্লেখ্য, দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের অধীনে রংপুর বিভাগের ৮টি জেলার ৩ হাজার ২৫৭টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ২ লাখ ৬৬ হাজার ৭৪৮ জন পরীক্ষার্থী এবারের জেএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য