মোঃ জাকির হোসেন, সৈয়দপুর (নীলফামারী) সংবাদদাতা ॥ নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলার বাঙ্গালীপুর ইউনিয়নের লক্ষণপুর পীরপাড়া থেকে ১ কেজি ৮ শ’ গ্রাম গাঁজাসহ ২ মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে পুলিশ।

২০ অক্টোবর রবিবার সকালে এ ঘটনায় আটক ২ মাদক ব্যবসায়ী হচ্ছে লক্ষণপুর পীরপাড়ার মৃত খায়ের উদ্দিনের ছেলে তোফায়েল (৪৫) ও বাঙ্গালীপুর ইউনিয়নের চৌমহনী মাঝাপাড়ার গুলজারের বাড়ির ভাড়াটিয়া জসিম উদ্দিন (৩৫)।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সৈয়দপুর থানার এসআই সাইদুর ও এসআই সাইদুল ইসলাম সৈয়দপুর-পার্বতীপুর সড়কের চৌমহনী বাজারে অভিযান চালায়। এসময় চৌমহনী থেকে পীরপাড়ার দিকে যাওয়ার প্রাক্কালে সন্দেহভাজন একটি ইজিবাইকের গতি রোধ করে।

তল্লাসী চালিয়ে ইজিবাইকের চালকের সিটের নিচ থেকে ১ কেজি ৮শ’ গ্রাম ওজনের প্রায় ১৮ হাজার টাকা মূল্যের পলিথিনের ব্যাগে পেচানো গাঁজা উদ্ধার করা হয়। পলিথিন ব্যাগের মালিক হিসেবে যাত্রীবেসী জসিম এসময় পালানোর চেষ্টা করলে তাকে ধাওয়া করে আটক করা হয়। পরে জিজ্ঞাসাবাদে সে জানায় জব্দকৃত গাঁজা পীরপাড়ার তোফায়েলের।

তার বক্তব্য অনুযায়ী পীরপাড়াস্থ তোফায়েলের বাড়িতে তল্লাসী চালিয়ে গাঁজা মাপার পাল্লা উদ্ধার করা হয়। এমতাবস্থায় তোফায়েলকেও আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়। পরে তাদের নামে মাদক নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করা হয়। মামলা নং-৫। আটককৃতদের নীলফামারী জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

আটক জসিমের বিরুদ্ধে ইতোপূর্বেও মাদক মামলা করা হয়েছে বলে জানা যায়। জসিম নরসিংদির শ্রীপুর থেকে নিয়মিত গাঁজা এনে এখানে তোফায়েলকে সরবরাহ করতো। এজন্য সে বাঙ্গালীপুর ইউনিয়নের চৌমহনী মাঝাপাড়ার গুলজারের বাড়ি ভাড়া নিয়ে মাদক ব্যবসা চালিয়ে আসছে।

এ ব্যাপারে সৈয়দপুর থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে সৈয়দপুর থানা পুলিশ ১ কেজি ৮ শ’ গ্রাম গাঁজাসহ দুই চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে। সৈয়দপুরে মাদক ব্যবসায়ী ও মাদক সেবীদের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে। সৈয়দপুরকে মাদকমুক্ত শহর হিসেবে গড়ে তুলতে আমরা সৈয়দপুর থানা পুলিশ সর্বদা তৎপর রয়েছি। এজন্য সকলে সহযোগিতা প্রত্যাশা করেন তিনি।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য