পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বর্তমান স্ত্রী বুশরা মানেকার প্রতিচ্ছবি নাকি আয়নায় দেখা যায় না। এমন একটি খবর বেশ কয়েক দিন থেকে আন্তর্জাতিক বিভিন্ন গণমাধ্যমে চাউর হয়। দেশটির ক্যাপিটাল টিভি প্রথম এই খবর ছড়ায়। তবে শেষমেশ ক্যাপিটাল টিভি তাদের এই প্রতিবেদন ভুয়া বলে স্বীকার করেছে।

ক্যাপিটাল টিভি তাদের প্রতিবেদনে জানায়, ইমরান খানের বর্তমান স্ত্রী বুশরা আধ্যাত্মিক ক্ষমতার অধিকারী। তাকে আয়নায় দেখা যায় না। এসব খবর প্রধানমন্ত্রীর স্টাফদের কাছে পেয়েছে বলে জানায় ক্যাপিটাল টিভি।

এছাড়া এর আগে রিপোর্টে বলা হয়, বুশরা মানেকার কাছে দুটি ‘জিন’ রয়েছে। ওই জিনদ্বয়কে রান্না করা মাংস খাওয়ান বুশরা। আর তার জেরেই নাকি সব অসম্ভব সম্ভব হয়ে যায়।

রিপোর্টে আরও দাবি করা হয়, একটি গলার আওয়াজ শুনতে পান বুশরা। আর সেই আওয়াজই নাকি তাকে সঠিক পথ বলে দেয়। বুশরার পরিবারের এক সদস্যের দাবি, বুশরাকে সেই অশরীরী আওয়াজ জানিয়েছিল, যদি ইমরান খান প্রধানমন্ত্রী হতে চান তবে তাকে সঠিক নারীকে বিয়ে করতে হবে। প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হওয়ার ছয় মাস আগেই বুশরাকে বিয়ে করেন ইমরান খান। তার আগে অবশ্য ছাড়াছাড়ি হয়েছিল রেহাম খানের সঙ্গে।

ক্যাপিটাল টিভিকে বরাত দিয়ে ইমরান খানের স্ত্রীর ‘আধ্যাত্মিক ক্ষমতার’ খবর প্রকাশ করে সংবাদ সংস্থা এএনআই।

ইতিমধ্যে ক্যাপিটাল টিভি ইমরান খানের স্ত্রীকে নিয়ে তাদের যে প্রতিবেদন তা ভুয়া বলে উল্লেখ করেছে। অন্যদিকে সংবাদ সংস্থা এএনআই- সেই প্রতিবেদন মুছে ফেলেছে। তথ্য সূত্র: টাইমস নাউ।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য