ভারতের প্রধান বিরোধীদল কংগ্রেসের নেতা রাহুল গান্ধী বলেছেন, কাশ্মীর ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয়, পাকিস্তান সেখানে সহিংসতায় উসকানি দিচ্ছে। আজ (বুধবার) সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে রাহুল ওই মন্তব্য করেন।

রাহুল বলেন, ‘বিভিন্ন বিষয়ে সরকারের সিদ্ধান্তে আমার আপত্তি রয়েছে। কিন্তু এটা একেবারে স্পষ্ট করে দিতে চাই যে, কাশ্মীর ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয়। এ বিষয়ে হস্তক্ষেপ করার কোনও অধিকার পাকিস্তান বা অন্য কোনও দেশের নেই।’

জম্মু-কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বাতিল করার পরে সেখানকার পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করতে গত শনিবার, রাহুল গান্ধী ও অন্য বিরোধী নেতারা শ্রীনগরে গিয়েছিলেন। কিন্তু সেখানকার প্রশাসন তাঁদেরকে বিমানবন্দরের বাইরে পা রাখতে না দিয়ে দিল্লিতে ফেরত পাঠিয়ে দেয়। ওই ঘটনায় প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে রাহুল সেসময় বলেন, ‘স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে যে জম্মু কাশ্মীরে পরিস্থিতি স্বাভাবিক নয়।’

এদিকে, রাহুল গান্ধীর মন্তব্যকে ব্যবহার করে জাতিসঙ্ঘের মানবাধিকার কমিশনে নালিশ করেছে পাকিস্তান। তাদের অভিযোগে বলা হয়েছে, রাহুল গান্ধীও স্বীকার করেছেন কাশ্মীরে মানুষ মরছেন এবং সেখানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক নয়।

ইসলামাবাদের ওই পদক্ষেপে ক্ষুব্ধ কংগ্রেস অস্বস্তিতে পড়ায় শেষমেশ ড্যামেজ কন্ট্রোল করতে রাহুল নিজেই টুইটার বার্তায় পাকিস্তানকে জবাব দিয়েছেন। রাহুল গান্ধী ও দলীয় ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ হওয়ার আশঙ্কায় কংগ্রেসের অন্য নেতারাও আজ এ নিয়ে সাফাই দিয়েছেন।

রাহুল গান্ধী আজ বলেন, ‘জম্মু-কাশ্মীরে সহিংস ঘটনা ঘটছে। সহিংসতায় মদদ দিচ্ছে পাকিস্তান। যারা গোটা বিশ্বে সন্ত্রাসবাদের প্রধান মদতদাতা হিসেবে পরিচিত।’

কংগ্রেস এমপি শশী থারুর রাহুলের মন্তব্যের সমর্থনে টুইট করে বলেন, ‘এটিই হল ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেসের মূল মতামত। জম্মু-কাশ্মীর ভারতের এক অবিচ্ছেদ্য অঙ্গ। আমরা ৩৭০ ধারা বাতিল করার পদ্ধতির বিরোধিতা করেছি, কারণ যেভাবে এটা হয়েছে তাতে আমরা আমাদের সংবিধান ও গণতান্ত্রিক মূল্যবোধের উপর অত্যাচার চালিয়েছি। আমাদের অবস্থান থেকে পাকিস্তানের কোনও স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করার কারণ নেই।’

অন্যদিকে, কংগ্রেসের মুখপাত্র রণদ্বীপ সূর্যেওয়ালা তার সাফাইতে বলেছেন, ‘গণমাধ্যমের থেকে জানতে পারলাম পাকিস্তান জাতিসঙ্ঘের নালিশে অন্যায়ভাবে রাহুল গান্ধীর নাম ব্যবহার করেছে শুধুমাত্র তাদের মিথ্যাচার প্রমাণ করার জন্য। আমরা একটা বিষয় স্পষ্ট করে দিতে চাই, জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখ ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ ছিল, আছে এবং থাকবে। এই ধ্রুবসত্যটি পাকিস্তানের শত অপচেষ্টাতেও বদলাবে না।’

এদিকে, কংগ্রেস নেতাদের সাফাই সত্ত্বেও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ও বিজেপি নেতা গিরিরাজ সিং তাঁর প্রতিক্রিয়ায় রাহুল গান্ধী ও কংগ্রেস ভারতকে অনেক আঘাত দিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন।
-পার্সটুডে

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য