দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুর শহরে দোকানে আগুন লেগে নগদ ২ লক্ষ টাকাসহ ২৯ লাখ টাকার মালামাল পুড়ে গেছে।

৪ আগস্ট শনিবার দিবাগত রাত পৌণে ৩টায় শহরের উপশহর হাউজিং মোড়ে চারটি দোকানে এই অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে।

এ সময় পিডিবি অফিসে বারাবার ফোন করার পরেও ফোন রিসিভ না হওয়ায় বিদ্যুৎ লাইন অপ না করায় তাৎক্ষণিক আগুন নেভাতে পারেনি ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা। এতে ক্ষয়ক্ষতি বেড়ে গেছে বলে অভিযোগ করেছে দোকান মালিকরা ।

জানা যায়, প্রতিদিনির মত রাতে দোকান বন্ধ করে দোকান মালিকরা চলে যায়। ৪ আগষ্ট রাত পৌনে ৩ টার সময় বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট থেকে হাউজিং মোড়ের চারটি দোকানে অগ্নিকান্ডের সুত্রপাত হয়। এ সময় ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয়া হলে ফায়ার সার্ভিসের দমকলবাহীনি দ্রুত সেখানে উপস্থিত হয়। কিন্তু এ সময় বৈদ্যুতিক লাইন অফ না থাকায় ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা আগুনে পানি ছিটাতে পারছিলনা।দিনাজপুরে দোকানে আগুন লেগে নগদ টাকাসহ ২৯ লাখ টাকার মালামাল পুড়ে ছাই Dinajpurnews দিনাজপুরনিউজ I+

এ সময় বৈদ্যুতিক সংযোগ বন্ধ করার জন্য পিডিবি’র বালুবাড়ি পাওয়ার স্টেশনে ফোনে বার বার যোগাযোগ করেও কাউকে পাননি তারা। বাধ্য হয়ে ফায়ার সার্ভিসের একজন সদস্য মোটরসাইকেল যোগে পাওয়ার স্টেশনে গিয়ে বিদ্যুৎ সংযোগ বন্ধ করান। এতে করে ৩০ মিনিট সময় লেগে যায়। ততক্ষণে দোকানের মালামাল নগদ টাকা সব কিছু পুড়ে যায়।

ক্ষতিগ্রস্থ দোকানের মালিক মো. নাদির হোসেন জানান, বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিটের আগুনে পুড়ে তার দোকানের বিকাশের নগদ ২ লাখ টাকাসহ ৭ লাখ টাকার মালামাল ভষ্মিভুত হয়ে ক্ষতি সাধন হয়েছে।

অপর মুদি দোকানের মালিক রফিকুল ইসলাম জানান, তার দোকানের ফ্রিজ, টিভিসহ প্রায় ৭ লাখ টাকার মালামাল আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

মুদি দোকানের মালিক ফারুক জানান, তার দোকানের সব সামগ্রী পুড়ে প্রায় ৩ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।

এছাড়াও ইলেট্রনিক্স দোকানের মালিক সুমন জানান, তার দোকানের ফটোকপি মেশিন, কম্পিউটারসহ সব ইলেকট্রনিক্স ও ইলেকট্রিক্যাল পণ্য আগুনে পুড়ে প্রায় ১০ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি হয়েছে।

দিনাজপুর ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স এর সিনিয়র স্টেশন কর্মকর্তা মোঃ শহিদুল ইসলাম জানান, পিডিবি‘র যারা রাতে ডিউটিতে ছিলেন তারা যদি ফোন রিসিভ করতেন তাহলে দ্রুত বিদ্যুৎ বন্ধ করা সম্ভব হত। আর দ্রুত আগুনো নেভা যেত । আর এটা হলে হয়তো এত ক্ষয়ক্ষতি হতনা।

এলাকার মানুষ পিডিবি বালুবাড়ী অফিসে নাইট ডিউটিতে যারা ছিল তাদের বিরুদ্ধে শাস্তি ব্যবস্থা গ্রহণ করার দাবী জানিয়েছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য