আজিজুল ইসলাম বারী,লালমনিরহাট প্রতিনিধিঃ লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে ভর্তি হওয়া এক রোগীকে ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত বলে শনাক্ত করা হয়েছে।

আনন্দ রায় নামের ১৭ বছর বয়সী ওই রোগী হাসপাতালে ভর্তি হন। তিনি আদিতমারী উপজেলার আরাজি দেওডোবা গ্রামের কামিনী রায়ের ছেলে। আনন্দ প্রথম কেউ যিনি লালমনিরহাটে ডেঙ্গু আক্রান্ত হিসাবে শনাক্ত হলেন।

লালমনিরহাটের সিভিল সার্জন ডা. কাশেম আলী ও সদর হাসপাতালের তত্বাবধায়ক ডা. গোলাম মোহাম্মদ এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, আনন্দ রায় বছর খানেক ধরে ঢাকার একটি গার্মেন্টেসে চাকুরি করছিলেন। তবে কয়েকদিন আগে তিনি বাড়ি আসেন। আর দুদিন ধরে জ্বরে ভুগছিলেন। তবে ওষুধ খেয়েও সুস্থ না হওয়ায় শনিবার বিকেলে তাকে সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পরে কর্তব্যরত চিকিৎসক রোগ নির্ণয়ে কিছু পরীক্ষা দেন। পরীক্ষার রিপোর্টে তার ডেঙ্গুজ্বর ধরা পড়ে। হাসপাতালে বিছানা খালি না থাকায় বর্তমানে ওই রোগীকে মেডিসিন ওয়ার্ডের মেঝেতে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

সদর হাসপাতালের তত্বাবধায়ক ডা. গোলাম মোহাম্মদ জানান, অসুস্থ আনন্দ বর্তমানে ভালো আছে। সে ঢাকা থেকেই ডেঙ্গু রোগ নিয়ে এসেছে।

ডেঙ্গু রোগ পরীক্ষার ব্যবস্থা সদর হাসপাতালে নেই জানিয়ে তিনি বলেন, ‘লালমনিরহাট শহরের একটি বেসরকারি ডায়াগনষ্টিক সেন্টারে এই রোগের পরীক্ষা নিরীক্ষার ব্যবস্থা আছে।’

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য