দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (হাবিপ্রবি)তে যৌন নির্যাতনকারী ও গৃহকর্মীর সাথে অবৈধ সম্পর্ক স্থাপনকারী বায়োকেমিষ্ট্রি এ- মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের শিক্ষক রমজান আলীকে বহিস্কার না করায় দিনাজপুরকে কলঙ্কমুক্ত করতে প্রয়োজনে দিনাজপুরবাসীকে নিয়ে ইয়াসমিন হত্যা আন্দোলনের মতো আন্দোলনে যাওয়ার ঘোষনা দিয়েছে মহিলা পরিষদ।

শনিবার সকাল সাড়ে ১১টায় দিনাজপুর প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এই ঘোষণা দেয়া হয়। সংবাদ সম্মেলনে লিখিতভাবে বক্তব্য রাখেন মহিলা পরিষদ দিনাজপুরের সাধারন সম্পাদক ড. মারুফা বেগম।

তিনি বলেন, অতি দ্রুত আবারও রিজেন্ট বোর্ড আহবানের মাধ্যমে এবং সেই রিজেন্ট বোর্ডে শিক্ষক রমজান আলীর বহিস্কারের এজেন্ডা হিসেবে অন্তর্ভূক্ত এবং চুড়ান্ত বহিস্কারের মাধ্যমে হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় এবং দিনাজপুরকে কলঙ্ক মুক্ত করার জন্য মহিলা পরিষদ জোর দাবী জানাচ্ছে।

অন্যথায় মহিলা পরিষদ হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা, ভাবমূর্তি রক্ষা তথা কলঙ্কমুক্ত করতে বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তুলবে। এই আন্দোলনে সকল সামাজিক, সাংস্কৃতিক, রাজনৈতিক সংগঠনের কর্মী, মিডিয়া সংশ্লিষ্ট সবাইকে যুক্ত হওয়ার আহবান জানানো হয়েছে।

পরবর্তী কর্মসূচীতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, রাজনৈতিকদলগুলোর সাথে মতবিনিময়, বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য, প্রধানমন্ত্রী, শিক্ষামন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান, মানববন্ধন, অনশনসহ অবস্থান ধর্মঘট ও বিক্ষোভ সমাবেশ করার ঘোষণা দেয়া হয়েছে। এতেও অভিযুক্ত শিক্ষককে স্থায়ীভাবে বহিস্কার ও বিচারে আওয়তায় না আনা হলে জেলার সব শ্রেনীপেশার মানুষকে নিয়ে দিনাজপুরে অবরোধ কর্মসূচীসহ বিভিন্ন আন্দোলন করার হুশিয়ারী দিয়েছে দিনাজপুর মহিলা পরিষদ।

এসময় মহিলা পরিষদের সভাপতি কানিজ রহমান, সাধারন সম্পাদক ড. মারুফা বেগম, সহ-সভাপতি অর্চনা অধিকারী, মাহবুবা খাতুন, সাংগঠনিক সম্পাদক রুবিনা আকতার, প্রশিক্ষন ও গবেষনা সম্পাদক রুবি আফরোজ, সামাজিক অনাচার প্রতিরোধ কমিটির আহ্বায়ক সফিকুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য