দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুরে ৯টি পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীরা দিনাজপুর প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন ও অর্ধদিবস অবস্থান কর্মসূচী পালন করেছে। রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে শতভাগ বেতনভাতাসহ পেনশন প্রথা এবং জনপ্রতিনিধিদের সম্মানী ভাতা প্রদানের দাবীতে তারা এই কর্মসূচী পালন করে। কর্মসূচীতে দিনাজপুর পৌরসভা, পার্বতীপুর, বীরগঞ্জ, ফুলবাড়ী, বিরামপুর, সেতাবগঞ্জ, হাকিমপুর, ঘোড়াঘাট ও বিরল পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীরা অংশ নেন।

মঙ্গলবার (২ জুলাই) দুইদিনের কর্মসূচীর শেষ দিনে সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত তারা দিনাজপুর প্রেসক্লাবের সামনে এই মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচী পালন করে। বাংলাদেশ পৌরসভা সার্ভিস এসোসিয়েশন কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির আহবানে দিনাজপুর জেলার ৯টি পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারী এতে যোগ দেন।

মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচীতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ পৌরসভা সার্ভিস এসোসিয়েশন রংপুর বিভাগীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক ও দিনাজপুর পৌরসভার উপ-সহকারী প্রকৌশলী মো. হাবিবুর রহমান। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ পৌরসভা সার্ভিস এসোসিয়েশন দিনাজপুর জেলা শাখার সভাপতি ও সেতাবগঞ্জ পৌরসভার সহকারী প্রকৌশলী মো. রইচ উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক ও দিনাজপুর পৌরসভার সহকারী প্রকৌশলী মো. লাইছুর রহমান চৌধুরী, দিনাজপুর পৌরসভা শাখার সভাপতি মজিবুর রহমান বাচ্চু, সেতাবগঞ্জ পৌরসভা শাখার সাধারণ সম্পাদক নুর ইসলাম মিলন, ফুলবাড়ী পৌরসভা শাখার সভাপতি শহিদুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রশিদ, বিরামপুর পৌরসভা শাখার সভাপতি মনিরুজ্জামান, সাধারণ সম্পাদক মামুনুর রশিদ, পার্বতীপুর পৌরসভা শাখার সভাপতি মিনারুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক মশিউর রহমান, বীরগঞ্জ পৌরসভা শাখার সভাপতি রুস্তম আলী, সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান, বিরল পৌরসভা শাখার সভাপতি তসরিফুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক মো. রাশেদ, ঘোড়াঘাট পৌরসভা শাখার সভাপতি শাহাদত হোসেন, সাধারণ সম্পাদক ফজলে রাব্বি লিখন ও হাকিমপুর পৌরসভা শাখার সভাপতি সাইফুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক আফসার আলী প্রমূখ।

মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচীতে দিনাজপুর পৌরসভার সচিব মো. মাহবুবর রহমান, পার্বতীপুর পৌরসভার সচিব মো. সাইদুজ্জামান, বীরগঞ্জ পৌরসভার সচিব আব্দুল হানিফ সরদার, বিরামপুর পৌরসভার সচিব মো. সেরাফুল ইসলাম, সেতাবগঞ্জ পৌরসভার সচিব হরিপদ রায় ও বিরল পৌরসভার সচিব হড়ানন্দ রায়সহ জেলার ৯টি পৌরসভার সকল স্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী অংশগ্রহণ করেন।

মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচীতে বক্তারা বলেন, দেশের বিভিন্ন পৌরসভা কর্মকর্তা-কর্মচারীগনের ২ মাস হতে ৫৮ মাস পর্যন্ত বেতন-ভাতা বকেয়া থাকায় তারা মানবেতর জীবন যাপন করছেন। পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীগন চাকুরী শেষে অবসরে গেলে অবসরকালীন ভাতা না পেয়ে অসহায় হয়ে পড়েন। পৌরসভার আর্থিক অস্বচ্ছলতার কারনে পৌরসভার পক্ষ থেকে তাদের বেতন-ভাতা ও অবসরকালীন ভাতা পরিশোধ করা সম্ভব হচ্ছে না।

সে কারণে সরকারী কোষাগার হতে শতভাগ বেতন-ভাতা ও পেনশন প্রাপ্তির জন্য পৌরসভা সার্ভিস এসোসিয়েশন দীর্ঘদিন যাবৎ অহিংস কর্মসূচী পালন করে আসছে। এসব বিবেচনা করে অবিলম্বে পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের এক দফা দাবী মেনে নেয়ার জন্য সরকারের প্রতি আহবান জানান বক্তারা। মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচী পালন শেষে দিনাজপুর প্রেসক্লাব থেকে এক বিশাল মিছিল বের হয়ে শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে দিনাজপুর পৌরসভার সামনে গিয়ে শেষ হয়।

এদিকে মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচী পালনের ফলে জেলার ৯টি পৌরসভার সকল নাগরিক সেবা বন্ধ থাকে। নাগরিক সেবা না পেয়ে পৌরবাসিকে দূর্ভোগ ও বিড়ম্বনা পোহাতে হয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য