বিরামপুর, (দিনাজপুর) সংবাদদাতাঃ দিনাজপুর জেলার বিরামপুর থানা পুলিশ দু’টি পৃথক অভিযানে অভিনব কায়দায় ফেন্সিডিল পাচারের সময় ২টি মিনিট্রাকসহ দুই যুবককে আটক করেছে।

আটককৃতরা হলেন দিনাজপুর সদর উপজেলার রামনগর গোলাপবাগ এলাকার আব্দুস সালামের ছেলে সাকিবুল ইসলাম সাকিব (২০) ও জেলার হাকিমপুর উপজেলার নওদাপাড়া গ্রামের কাফাজ উদ্দিনের ছেলে লিটন (২২)। এ বিষয়ে ১৬ জুলাই রবিবার বিরামপুর থানায় পৃথক ভাবে দু’টি মামলা হয়েছে। বিরামপুর থানার মামলা নং ১৭ ও ১৮।

বিরামপুর থানার ওসি মনিরুজ্জামান জানান, রবিবার ভোরে উপজেলার সীমান্ত এলাকা থেকে একটি ট্রাকে ফেন্সিডিল পাচার হচ্ছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলার রেলগেট নামক স্হানে পুলিশের একটি দল ওৎ পেতে থাকে। এ সময় ( দিনাজপুর -ড ১১-০০১২) নং ট্রাকটি রেলগেট নামক স্হানে পৌছিলে পুলিশ ট্রাকটি আটক করে তল্লাশি চালায়।

তল্লাসির একপর্যায়ে ট্রাকের ইন্জিনবক্সে অভিনব কায়দায় টেপ দিয়ে মোড়ানো ৫০০ বোতল ফেন্সিডিলসহ ২ জনকে আটক করে। তিনি আরও জানান রবিবার সকালে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশের একটি দল বিরামপুর ঘাটপাড় নামক স্থানে অবস্থান নেয়। এ সময় উপজেলার জোতবানি ইউনিয়নের শিবপুর এলাকা থেকে ফেন্সিডিল বহনকারী মিনি ট্রাকটি পুলিশের নাগালের মধ্য এলে পুলিশ দাঁড়ানোর সংকেত দেয়।

পুলিশের সংকেত এড়িয়ে চালক দ্রুত ট্রাকটি নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পুলিশ ট্রাকের পিছু ধাওয়া করলে চালক ও মাদকপাচারকারিরা ট্রাকটি উপজেলার হাবিবপুর এলাকায় রেখে পালিয়ে যায়।পরে মিনিট্রাকটি তল্লাশি করে পাটাতনের নিচে তৈরী বক্স থেকে ৭২০ বোতল ফেন্সিডিলসহ মিনিট্রাকটি আটক করে।

বিরামপুর সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার(এএসপি) মিথুন সরকার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। সেইসাথে আটককৃতদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে পৃথক ২টি মামলা দায়ের পৃর্বক তাদেরকে দুপুরে দিনাজপুর কোর্টে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য