দিনাজপুর সংবাদাতাঃ জাতীয় সংসদে বৃহস্পতিবার ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেট ঘোষনার কারনে দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দরের কাস্টমসে আমদানি ও রফতানিকৃত সকল প্রকার পণ্যের বিল অব এন্ট্রি সাবমিট বন্ধ থাকলেও আমদানি-রফতানি স্বাভাবিক রয়েছে বলে হিলি কাস্টমস কতৃপক্ষ জানিয়েছে। এ সময় বন্দর দিয়ে পন্য আমদানি- রফতানি স্বাভাবিক থাকলেও পন্য ছাড়করন হবে না।

বুধবার বিকেল সাড়ে ৩টা থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা পর্যন্ত সার্ভার বন্ধ থাকবে। এ সংক্রান্ত একটি নোটিশ কাস্টমসের নোটিশ বোর্ডে টাঙানো হয়েছে।

হিলি স্থল শুল্ক স্টেশনের রাজস্ব কর্মকর্তা আবু বক্কর ছিদ্দিক জানান, আগামীকাল বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদে ২০১৯-২০ অর্থ বছরের বাজেট পেশ করা হবে। বাজেটে অনেক পণ্যের উপর আমদানি শুল্ক বৃদ্ধি বা কমানো হতে পারে। আর বাজেট ঘোষনাকালীন সময়ে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড এনবিআর থেকে কাস্টমসের সার্ভার বন্ধ থাকবে।

হিলি কাস্টমসের সকল কার্যক্রম স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতিতে হওয়ার কারনে সার্ভার বন্ধ থাকার কারনে আমদানিকৃত পন্যের ইমপোর্ট ম্যানিফিষ্ট ও বিল অবএন্ট্রি সাবমিটসহ পণ্যের পরিক্ষন ও শুল্কায়ন সহ কাস্টমসের সকল প্রকার কার্যক্রম বন্ধ থাকবে।

ব্যবসায়ীরা যাতে পণ্য আমদানি করে ক্ষতির মুখে না পড়ে সেকারনে তাদেরকে অগ্রিম জানানোর জন্য এক নোটিশের মাধ্যমে বিষয়টি বন্দরের সকল আমদানি, রফতানিকারক ও সিএন্ডএফ এজেন্টগনকে জানানো হয়েছে।

তবে কাস্টমসে ইমপোর্ট ম্যানিফিষ্ট ও বিল অবএন্ট্রি সাবমিট কার্যক্রম বন্ধ থাকলেও বন্দর দিয়ে উভয় দেশের মাধ্যে পণ্য আমদানি রফতানি কার্যক্রম স্বাভাবিক থাকবে। সেই সাথে পুর্বের আউটপাশকৃত মালামাল বন্দর থেকে ছাড় নিতে পারবেন আমদানিকারকরা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য