মাসুদ রানা পলক, ঠাকুরগাঁওঃ ঠাকুরগাঁওয়‌ের পীরগঞ্জ র‌েল স্ট‌েশন‌ে ঢাকাগামী আন্তঃনগর ট্রেন‌ের টিকিট কালোবাজারির কাছ‌ে দ্বিগুণ‌েরও ব‌েশি দাম‌ে কিনত‌ে হছ‌ে যাত্রীদ‌ের।

পীরগঞ্জ থ‌েক‌ে ঢাকা পর্যন্ত ট্রেন‌ের টিকিটের দাম ৫০০টাকা হল‌েও কালোবাজারি চক্রটি ক‌ৌশল‌ে কাউটার থ‌েক‌ে টিকিট কিন‌ে ১২০০টাকায় বিক্রি করছ‌ে প্রতিটি টিকিট। তব‌ে র‌েল স্ট‌েশন মাস্টার বলছ‌েন, কালোবাজারি চক্র বন্ধ‌ে তাদ‌ের কা‌েন করার ন‌েই। যাত্রীদ‌ের অভিযা‌েগ, লম্বা লাইন‌ে দাঁড়িয়‌ে ট্র‌েনর টিকিট ক‌েনার আগ‌েই টিকিট বিক্রি শ‌েষ হয়‌ে যায়। কালোবাজারি চক্রটির সদস্যরা সবার প্রথম‌ে লাইন‌ে দাঁড়িয়‌ে টিকিট কিন‌ে পর‌ে স‌েই ৫০০টাকার টিকিট বাইর‌ে বিক্রি করছ‌ে ১২০০টাকায়। ট্র‌েন ভ্রমণ নিরাপদ হওয়ায় যাত্রীরা বাধ্য হয়‌ে দ্বিগুণ টাকা দিয়‌েই চক্রটির কাছ‌ে টিকিট কিনছ‌েন।

রাণীশংকল উপজ‌েলা থ‌েক‌ে আসা রিপন বল‌েন, ‘লাইন‌ে দাঁড়িয়‌েও কাউটার থ‌েক‌ে টিকিট কিনত‌ে পারিনি। পরে আর‌েকজন‌ের মাধ্যম‌ে ১২০০টাকা দিয়‌ে টিকিট কিন‌েছি। ট্র‌েন যাত্রায় বারতি ট‌েনশন বা দুর্ঘটনার আশংকা কম থাকায় বাধ্য হয়েই ব‌েশি টাকা দিয়‌ে টিকিট কিনছি।

ঢাকার গাজীপুর‌ে একটি গার্মেন্টসে চাকুরি করে পীরগঞ্জ‌ের নজরুল ইসলাম তাঁর অভিযা‌েগ চড়া দাম‌ে টিকিট কিনত‌ে বাধ্য হয়‌েছ‌েন। তিনি বল‌েন, ঈদ‌ের ছুটিত‌ে বাড়ি আসছিলাম। ছুটি শ‌েষ এখন আবার ফিরত‌ে হব‌ে কর্মস্থলে। ট্রেন‌ের টিকিটা তা‌ে কাউন্টার থেক‌ে কিনত‌ে পারলাম‌েই নাহ। মাইনকার চিপায় পড়ে ১২শ টাকা দিয়‌েই টিকিট নিছি। সরকার ইচ্ছে করল‌েই এইসব বন্ধ করত‌ে পার‌ে। আমাদ‌ের মতা‌ে মানুষদ‌ের কাছ‌ে এতা‌ে দাম‌ে টিকিট ক‌েনা কষ্ট সাধ্য হল‌েও বাধ্য হয়‌ে টিকিটটি চড়া দাম‌ে কিনত‌ে হচ্ছে।

হরিপুর, রাণীশংক‌ৈল ও পীরগঞ্জ এই তিন এলাকার মানুষ‌ের য‌েহ‌েতু স্ট‌েশন পীরগঞ্জ। তাই এখান‌ে ঠাকুরগাঁও স্ট‌েশন‌ের থ‌েক‌েও ব‌েশি টিকিট দরকার। এখানে সেতুলনায় খুবই কমআসন রাখা হয়েছে। আসন সংখ্যা বাড়ানা‌ে উচিৎ।

আর সিন্ডিক‌েট‌ের জন্য বর্তমান কাউটার তা টিকিট পাওয়াই যায় না।

স‌েনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত সদস্য হাবিব বল‌েন, এইসব কালোবাজারি বন্ধ করা উচিত প্রশাসন‌ের। কালোবাজারিদের জন্য আমাদ‌ের টিকিট দ্বিগুণ দাম‌ে কিনত‌ে হচ্ছে। এই চক্রটিকে আইন‌ের আওতায় আনার দাবি জানাছি। তিনি আরও বলেন, পীরগঞ্জ রেল স্ট‌েশন‌ের কর্মকর্তার সাথ‌ে কালোবাজারি চক্র‌িটির যা‌েগসাজ‌েশ আছ‌ে নিশ্চয়ই। তব‌ে এই সব‌ের সাথ‌ে রাজন‌ৈতিক ন‌েতাদ‌ের সম্পক্ততা না থাকল‌েও সিন্ডিকট বন্ধ রাজন‌ৈতিক মহল‌ের চুপ থাকার বিষয়টি রহস্যজনক। দ্রুত কালোবাজারি বন্ধে প্রশাসন‌ের হস্তক্ষ‌েপ কামনা করছি।

সূত্র বলছ‌ে, র‌েল স্ট‌েশন মাস্টার‌ের সাথ‌ে সমঝা‌েতা কর‌েই কালাবাজারি সিন্ডিকট চক্রটি টিকিট‌ের এই রমরমা বাণিজ্য দীর্ঘদিন ধর‌ে চালিয়‌ে আসছ‌ে। কালোবাজারি চক্র‌ের কালাবাজারির ভাগবাটা‌েয়ারার টাকার একটি অংশ র‌েল স্ট‌েশন মাস্টার‌ের পক‌েট‌ে ঢুক‌ে। তব‌ে এই বিষয়টি অস্বীকার কর‌েন স্ট‌েশন মাস্টার।

র‌েলস্টশন মাস্টার‌ের তথ্য অনুযায়ী, পঞ্চগড় থ‌েক‌ে ঢাকাগামী একতা এক্সপ্র‌েস পীরগঞ্জ র‌েল স্ট‌েশন‌ের জন্য শা‌েভন চ‌েয়ার‌ের আসন সংখ্যা মাত্র ২২টি বরাদ্দ আছ‌ে। এসি বা ক‌েবিন‌ের কা‌েন আসন বরাদ্দ ন‌েই। ট্র‌েনটি পীরগঞ্জ ছ‌েড়‌ে যায় প্রতিদিন রাত ১০টা ৫মিনিট‌ে। অপরদিক‌ে দ্রুতযান এক্সপ্রেস ট্র‌েন পীরগঞ্জ স্ট‌েশন‌ের যাত্রীদ‌ের জন্য মাত্র ৩০টি আসন বরাদ্দ রয়‌েছ‌ে। ট্র‌েনটি প্রতিদিন সকাল ৮টা ২৫ মিনিট পীরগঞ্জ ছ‌েড়‌ে যায়।

স্ট‌েশন মাস্টার গা‌েলাম রবানী জানান, যাত্রীদ‌ের চাহিদার তুলনায় পীরগঞ্জ‌ে ট্র‌েনর আসন বরাদ্দ খুবই কম। কারণ পীরগঞ্জ স্ট‌েশন পাশ্ববর্তী রাণীশংক‌ৈল ও হরিপুর উপজ‌েলার যাত্রীও আস‌ে। যাত্রীদর চাহিদা অনুযায়ী, প্রতিদিন একতা এক্সপ্র‌েস পীরগঞ্জ র‌েল স্ট‌েশন‌ের আসন প্রয়া‌েজন ১০০টি। তাহল‌ে যাত্রীদ‌ের চাহিদা পূরণ হব‌ে। স‌েখান টিকিট বরাদ্দ মাত্র ২২টি।

যাত্রীদ‌ের চাহিদা পূরণ করা সম্ভব হচ্ছে না বল‌ে জানান তিনি। কালোবাজারির বিষয়‌ে তিনি বল‌েন, ক‌ে সিন্ডিকটর লা‌েক স‌েটা তাে আমি চিন‌ে রাখি না। প্রতিদিন সকাল ১১টায় আন্তঃনগর ট্রেন‌ের টিকিট ছাড়া হয়। এসময়‌ে যারাই আগ‌ে এস‌ে লাইন‌ে দাঁড়ায় তারাই টিকিট পায়। তব‌ে পাশ্ববর্তী ঠাকুরগাঁও সদর র‌েল স্ট‌েশন‌ের টিকিট অনলাইন চালুর পর বর্তমান‌ে পীরগঞ্জ র‌েলস্টশন‌ের কালোবাজারে টিকিট বিক্রি হয় না বলে তিনি দাবী কর‌েন।

গা‌েলাম রবানী বল‌েন, ‘পীরগঞ্জ র‌েল স্ট‌েশন‌ের টিকিট লাইন‌ে দাঁড়িয়‌ে ক‌েনার পর স‌েই টিকিট বাইর‌ে ক‌ে ব‌েশি দাম‌ে বিক্রি করছ‌ে স‌েটা তা‌ে আমার পক্ষ‌ে সনাক্ত করা সম্ভব নয়।কালোবাজারি বন্ধে তাদ‌ের পক্ষ‌ে কােন করার ন‌েই জানিয়‌ে তিনি বল‌েন, আমার কাছে যতক্ষণ টিকিট আছ‌ে আমি ততক্ষণ বিক্রি করি। টিকিট শ‌েষ আমার কাউটারও বন্ধ।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য