লিবিয়ার রাজধানী ত্রিপোলির আশপাশের এলাকাগুলোর মানবিক পরিস্থিতির ভয়াবহ অবনতি হয়েছে বলে জানিয়েছে রেড ক্রস।

বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে তারা বলেছে, “ত্রিপোলির আশপাশের ঘনবসতিপূর্ণ এলাকাগুলো ক্রমান্বয়ে এক একটি যুদ্ধক্ষেত্রে পরিণত হচ্ছে।”

ত্রিপোলিকে ঘিরে গত তিন সপ্তাহের সংঘর্ষে ২৭৮ নিহত ও ১৩৩২ জন আহত হয়েছে বলে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার এক টুইটের বরাত দিয়ে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

সংঘর্ষে সৃষ্ট বিদ্যুৎ বিভ্রাটে হাসপাতালগুলোকে হিমশিম খেতে হচ্ছে; পানি তোলার স্টেশনগুলো দুর্বল হয়ে পড়ছে বলেও জানিয়েছে রেড ক্রস।

“হাসপাতাল, চিকিৎসা ‍কেন্দ্রগুলো, স্বাস্থ্য কর্মী ও আঘাতপ্রাপ্তদের পরিবহনে নিয়োজিত যানবাহনের নিরাপদ চলাচল নিশ্চিত করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ,” বিবৃতিতে বলেছে এ আন্তর্জাতিক সংস্থাটি।

ত্রিপোলির নিয়ন্ত্রণ ধরে রাখা পূর্ব লিবিয়ার সরকারের বিরোধী একটি গোষ্ঠীর মিত্র লিবিয়ান ন্যাশনাল আর্মি গত কয়েক সপ্তাহ ধরেই রাজধানীর দখল নিতে একের পর এক আক্রমণ চালিয়ে গেলেও এখন পর্যন্ত শহরটির দক্ষিণাঞ্চলের প্রতিরোধ ভাঙতে পারেনি।

দক্ষিণের উপকণ্ঠে বিভিন্ন শহর ও গ্রামগুলোতে এখনো থেমে থেমে তুমুল লড়াই ও শেলিং চলছে বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

রাজধানীর ক্ষমতা না বদলালেও এ এলাকাগুলো প্রায় প্রতিদিনই দুই পক্ষের মধ্যে হাতবদল হচ্ছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য