সুদানের সাবেক প্রেসিডেন্ট ওমর আল-বাশিরকে ক্ষমাতচ্যুত করার পরও সৌদি নেতৃত্বাধীন ইয়েমেন যুদ্ধে অংশ নেয়া অব্যাহত রাখবে সুদানের সেনারা।

সুদানের জান্তা সরকার গতকাল (সোমবার) এক বিবৃতিতে একথা জানিয়েছে। সম্প্রতি সামরিক অভ্যুত্থানে ক্ষমতাচ্যুত হন সুদানের সাবেক প্রেসিডেন্ট ওমর আল-বাশির।

সুদানের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা সুনা-তে প্রকাশিত বিবৃতিতে জান্তা সরকারের দ্বিতীয় ক্ষমতাধর ব্যক্তি মুহাম্মাদ হামদান দাগলো বলেন, “আরব জোটের প্রতি আমরা আমাদের প্রতিশ্রুতির বিষয়ে অটল থাকব এবং আরব জোট তার লক্ষ্য অর্জন না করা পর্যন্ত আমাদের সেনারা ইয়েমেন যুদ্ধে অংশ নেবে।”

২০১৫ সালে সৌদি আরব ও কয়েকটি আঞ্চলিক মিত্র জনপ্রিয় হুথি আনসারুল্লাহ আন্দোলনকে নির্মূল করতে ইয়েমেনে সামরিক আগ্রাসন চালায়। যেসব দেশ সৌদি নেতৃত্বাধীন যুদ্ধে অংশ নিচ্ছে সুদান তার অন্যতম।

দেশটি সৌদি আরবের অনুগত দেশ হিসেবে কাজ করলেও সেনা অভ্যুত্থানের পর ধারণা করা হচ্ছিল সুদান হয়ত কথিত আরব জোট থেকে সেনা প্রত্যাহার করবে। কিন্তু জান্তা সরকারের এ বিবৃতির মাধ্যমে সে সম্ভাবনা নস্যাত হলো।

ইয়েমেন যুদ্ধে বহু সুদানি সেনা হতাহত হওয়ায় সেখান থেকে সেনাদেরকে দেশে ফেরত নেয়ার বিষয়ে সরকারের ওপর চাপ রয়েছে।
-পার্সটুডে

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য