দিনাজপুর সংবাদাতাঃ নারীর প্রতি সকল ধরনের সহিংসতা বন্ধে সরকারের প্রতি জিরো টলারেন্স নীতি ঘোষনার দাবি জানিয়ে ড. মারুফা বেগম বলেছেন, নারী ও মেয়েদের প্রতি সহিংসতা যে কেবল তাদের ব্যক্তি অধিকার ক্ষুন্ন করে তা নায়।

অপরাধীরা প্রায় সময়ই বিচারহীনতার সুযোগ নিয়ে এমন সব কর্মকান্ড করে থাকে যে সকল নারী ও মেয়েদের মধ্যে এক ধরনের আতঙ্ক সৃষ্টি হয়। এর ফলে সামাজিক ও অর্থনৈতিক অবস্থার উপর সুদুরপ্রসারী নেতিবাচক প্রভাব পড়ে।

নারীর প্রতি সহিংসতার মূল্য পরিবারের পাশাপাশি গোটা জাতিকে বহন করতে হয়। তিনি সরকারের প্রতি আহবান জানান যেভাবে দেশে জঙ্গীবাদ নিমূল করা হয়েছে। ঠিক সেই ভাবেই নারীর প্রতি সকল ধরনের সহিংসতার বন্ধে জিরো টলারেন্স নীতি ঘোষনা করতে হবে।

৯ এপ্রিল মঙ্গলবার বেলা ১১টায় দিনাজপুর প্রেসক্লাব সম্মুখ সড়কে সামাজিক অনাচার প্রতিরোধ কমিটির আয়োজনে ছাত্রী যৌন হয়রানী ও আগুনে পড়িয়ে মারার চেষ্টার প্রতিবাদে এবং দেশব্যাপী নারীর প্রতি সকল প্রকার সহিংসতা প্রতিরোধে মানববন্ধন কর্মসূচীতে দিনাজপুর সামাজিক অনাচার প্রতিরোধ কমিটির সদস্য সচিব ড. মারুফা বেগম এসব কথা বলেন।

দিনাজপুর সামাজিক অনাচার প্রতিরোধ কমিটির আহবায়ক মোঃ শফিকুল ইসলাম এর সভাপতিত্বে ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধন কর্মসূচী চলাকালীন সময়ে বক্তব্য রাখেন দৈনিক উত্তরবাংলার নির্বাহী সম্পাদক জিনাত রহমান, মহিলা পরিষদের সহ-সভাপতি অর্চনা অধিকারী, আমাদের থিয়েটারের পরিচালক তারেকুজ্জামান তারেক, সংগীত ডিগ্রী কলেজের শিক্ষক বদিউজ্জামান বাদল, কলেজিয়েট গালর্স স্কুল এন্ড কলেজের সহকারী শিক্ষক সাবিনা ইয়াসমিন, মহিলা পরিষদের রুবি আফরোজ প্রমুখ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন মহিলা পরিষদের সাংগঠনিক সম্পাদক রুবিনা আকতার।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য