বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) সংবাদাতাঃ বীরগঞ্জে ৩ এপ্রিল প্রেমের ফাঁদে ফেলে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষন ১০জনের বিরুদ্ধে মামলা, ধর্ষক পলাতক-পিতাকে গ্রেফতার করে ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

বীরগঞ্জ থানা সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার নিজপাড়া গ্রামের আনারুল ইসলামের ছেলে কলেজ ছাত্র (চলতি এইচএসসি পরীক্ষার্থী) লাবু ইসলাম (১৮) প্রতিবেশী নখাপাড়া গ্রামের রবিউল ইসলামের স্কুল পরুয়া মেয়ে ৬ষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্রীকে প্রেমের ফাঁদে গত ১এপ্রিল বিকেলে কথা বলার জন্য বাড়ীর পাশে ভূট্টা ক্ষেতে ডেকে নিয়ে গিয়ে জোর পূর্বক ধর্ষন করে।

স্কুল ছাত্রীর চিৎকারে তার মা কুলসুম সহ পাড়ার লোকজন ভূট্টা ক্ষেতে ছুটে গেলে ধর্ষক পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় ছাত্রীটির বাবা ইউপি চেয়ারম্যান খালেক সরকারের কাছে বিচার প্রার্থনা করেন। খালেক চেয়ারম্যান উভয় পক্ষকে নিয়ে সালিস মিমাংসার বৈঠক করে ব্যার্থ হয়। নিরুপায় স্কুল ছাত্রীর বাবা থানায় অভিযোগ করে।

পুলিশ রাতেই ধর্ষকের বাড়ীতে অভিযান চালায় পুলিশের উপস্থিতি বুঝতে পেরে ধর্ষক বাড়ী থেকে পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়। পুলিশ ধর্ষকে নাপেয়ে তার বাবা আনারুল ইসলাম (৪০) কে গ্রেফতার করে ৩ এপ্রিল দুপুরে ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে সোপর্দ করেছে।

মামলার তদন্তকারী অফিসার থানার এসআই তৌহিদ সংবাদের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ২০০০ সালের নারী ও শিশু নিযার্তন দমন আইনের (সং-০৩ইং) এর ৯ (১) তৎসহ ১৪৩, ৪৪৭, ৪৪৮, ৩২৩, ৩৭৯, ৩৫৪, ৫০৬ (॥), ৫০৬ প্যানাল কোট ধারায় থানায় একটি মামলা রেকর্ড করা হয়েছে। যার নং-৩(৪)১৯ ঘটনার তদন্ত চলছে ধর্ষকসহ অন্যরা পলাতক রয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য