ভারতের আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে একটি নয়, বরং দুইটি আসন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। রবিবার (৩১ মার্চ) কংগ্রেসের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, পারিবারিক শক্ত ঘাঁটি বলে বিবেচিত আমেথি আসনের পাশাপাশি এবার কেরালার ওয়েনাড় আসন থেকেও লড়বেন তিনি। এ নিয়ে প্রথমবারের মতো দুইটি আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে যাচ্ছেন রাহুল। ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

কেরালা প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির তরফ থেকে উমেন চান্ডি গত সপ্তাহেই ঘোষণা করেছিলেন রাহুলকে কংগ্রেসের শক্ত ঘাঁটি ওয়েনাড় থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে দক্ষিণ ভারতে তার উপস্থিতি প্রতিপন্ন করানোর জন্যেই এই পরিকল্পনা বলে জানিয়েছিলেন তিনি। রবিবার এক সংবাদ সম্মেলনে কংগ্রেস নেতা এ কে অ্যান্টনি বলেন, ‘দুই আসন থেকে লড়ার ব্যাপারে সম্মতি জানিয়েছেন রাহুল। অত্যন্ত আনন্দের সঙ্গে আপনাদের জানাচ্ছি যে, কেরালার ওয়েনাড় থেকেও তিনি প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন।’

রাহুলের সিদ্ধান্ত নিয়ে কটাক্ষ করে এরইমধ্যে বক্তব্য দিতে শুরু করেছে বিজেপি শিবির। বিজেপি নেত্রী তথা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি দাবি করেছেন, ‘আমেথিতে হেরে যাবেন, সেটা জানেন বলেই একটা ভয় থেকেই কেরালার ওয়েনাড় লোকসভা আসন থেকেও দাঁড়াচ্ছেন রাহুল গান্ধী।’

এ ব্যাপারে কংগ্রেস মুখপাত্র রণদ্বীপ সিং সুরজেওয়ালার কাছে জানতে চাওয়া হয়। বলা হয়, এবার আমেথির আসনে জেতার ব্যাপারে রাহুল গান্ধী আত্মবিশ্বাসী নন কিনা। জবাবে কংগ্রেস মুখপাত্র রণদ্বীপ সিং সুরজেওয়ালা পাল্টা প্রশ্ন করেন। বলেন, ‘মোদি কেন গুজরাট ছেড়ে বারানাসি থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন? তিনি কি গুজরাট নিয়ে আত্মবিশ্বাসী নন? এগুলো হলো অপরিণত ও শিশুসুলভ মন্তব্য।’ স্মৃতি ইরানি এবার তার হারের হ্যাটট্রিক করবেন বলেও দাবি করেছেন সুরজেওয়ালা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য