02 17 19

রবিবার, ১৭ই ফেব্রুয়ারী, ২০১৯ ইং | ৫ই ফাল্গুন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১১ই জমাদিউস-সানি, ১৪৪০ হিজরী

Home - রংপুর বিভাগ - কৃষকদের কাছ থেকে অতিরিক্ত সেচ মূল্য আদায়ের অভিযোগ

কৃষকদের কাছ থেকে অতিরিক্ত সেচ মূল্য আদায়ের অভিযোগ

আরিফ উদ্দিন, গাইবান্ধা প্রতিনিধিঃ চলতি বোরো মওসুমে গাইবান্ধায় কৃষকদের কাছ থেকে অতিরিক্ত সেচ মূল্য আদায় করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে মওসুমের শুরুতেই আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন কৃষকরা।

App DinajpurNews Gif

কৃষকদের অভিযোগ, বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ তাদের আওতাধীন গভীর নলকূপের সেচের মূল্য নির্ধারণ করেছে প্রতি ঘণ্টায় ১২৫ টাকা। পুরো মওসুমে প্রতি বিঘা জমির সেচ মূল্য ১ হাজার ২৫০ টাকা। অথচ বরেন্দ্র প্রকল্পের আওতাধীন গভীর নলকূপের মালিকরা তা মানছেন না।

তারা এই তথ্য গোপন করে কৃষকদের কাছ থেকে ১ হাজার ৮শ টাকা থেকে ২ হাজার ৫শ টাকা পর্যন্ত সেচ মূল্য আদায় করছেন অভিযোগ রয়েছে। এতে প্রতি বিঘায় বোরো চাষে কৃষকদেরকে অতিরিক্ত টাকা দিতে হচ্ছে। এতে বিঘা প্রতি উৎপাদন ব্যয়ও বৃদ্ধি পাচ্ছে।

বর্তমানে গাইবান্ধার সাত উপজেলায় বোরো ধান রোপনের কাজ প্রায় শেষ হয়েছে। উপজেলা সেচ কমিটির পক্ষ থেকে এখন পর্যন্ত পানির সেচ মূল্য নির্ধারণ করা হয়নি। এই সুযোগ বুঝে কৃষকদের কাছ থেকে অতিরিক্ত টাকা হাতিয়ে নিচ্ছেন গভীর ও অগভীর নলকূপের দায়িত্বপ্রাপ্ত ব্যক্তিরা। নিয়ন্ত্রণ না থাকায় এই সুযোগে নলকূপের মালিকদের দেখাদেখি ডিজেল চালিত নলকূপের মালিকরাও বেশি দামে পানি বিক্রি করছেন।

সংশি¬¬ষ্ট সূত্রে জানা গেছে, গাইবান্ধা জেলায় চলতি মওসুমে ১ লাখ, ২৭ হাজার, ৭শ’ ৪০ হেক্টর জমিতে বোরো আবাদ করা হচ্ছে। প্রতি বিঘা জমির সেচের জন্য পানি কিনতে হচ্ছে ১ হাজার ৮শ টাকা থেকে ২ হাজার ৫শ টাকা করে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য