দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুর চিরিরবন্দরে নাশকতা মামলার পলাতক ১৪ জামায়াত ক্যাডারদের বিচারক জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরণের আদেশ প্রদান করেন।

আজ রোববার দুপুর দেড়টায় দিনাজপুর জেলা ও দায়রা জজ আজিজ আহমদ ভুঞার আদালতে নাশকতা মামলার পলাতক ১৪ জামায়াত-শিবির ক্যাডার আত্মসমর্পন করে জামিনের আবেদন করলে বিচারক তাদের জামিন নাকচ করে সকলকে জেল হাজতে প্রেরণের আদেশ দেন।

এরা হচ্ছে চিরিরবন্দর উপজেলার রানীরবন্দর ও নশরতপুর গ্রামের জামায়াত ক্যাডার বেলাল আহমেদ (৩৮), মোস্তাক আলী (৪৫), মেহেদুল হক (৪০), শহিদুল ইসলাম (৩৫), রিয়াজউদ্দীন (৪৮), হাসান আলী (৪৫), শিবির ক্যাডার রেজাউল করিম (৩০), আব্দুল মজিদ (২৮), আব্দুল হাকিম (২৮), সাজ্জাদ হোসেন (২৭), ইসতিয়াক আহমেদ (২৬), শরিফুল ইসলাম (২৫), ইশরাক আহমেদ (২৪) ও শামসুল আলম (৩০)।

উল্লেখ্য যে, গত ২০১৩ সালের ৯ নভেম্বর সকাল ৮টায় জেলার চিরিরবন্দর উপজেলার রানীরবন্দরে দিনাজপুর-রংপুর মহাসড়কে গাছের গুড়ি ফেলে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে ১১টি যানবাহন ভাংচুর, ক্ষতিসাধন ও লুটপাট করে।

এছাড়া ওই সময় ঘটনাস্থলে জামায়াত-শিবির ক্যাডারে ২টি মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দেয়ার ঘটনায় চিরিরবন্দর থানার এসআই সরাফত ইসলাম বাদী হয়ে বিশেষ ক্ষমতা আইনে একটি মামলা দায়ের করেন। মামলাটি দীর্ঘ সময় তদন্ত করে তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক এসআই হারেসুল ইসলাম ৬৬ জন জামায়াত-বিএনপি-শিবিরের ক্যাডারদের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশীট পেশ করে।

আসামীরা জামিনে গিয়ে পলাতক থাকায় তাদের বিরুদ্ধে আদালত থেকে গ্রেফতারী পরোয়ানা জারী করা হয়। আজ রোববার আত্মসমর্পন করে তারা জামিনের আবেদন করলে বিচারক উক্ত আদেশ প্রদান করেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য