বীরগঞ্জে মহিলা কৃষি শ্রমিকদের কদর বেড়ে গেছেবীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি ॥ বীরগঞ্জে ৭১ হজার ২৫০ বিঘা জমিতে বোরো চাষ অর্জনে মহিলা কৃষি শ্রমিকদের কদর বেড়ে গেছে।

উপজেলা কৃষি অফিস সুত্রে জানা গেছে, বীরগঞ্জ পৌরসভা সহ উপজেলার মরিচা, মোহনপুর ভোগনগর, মোহাম্মদপুর, নিজপাড়া, সুজালপুর, পাল্টাপুর, শতগ্রাম, পলাশবাড়ী ও শিবরামপুর ইউনিয়ন সমুহের ১৮৭টি মৌজার কৃষকেরা চলতি বোরো রোপা মৌসুমে ৩৫ হাজার ১৯৭ একর জমিতে রোপা লাগানোর সিন্ধান্ত গ্রহন করেছে।

ইতমধ্যে বীরগঞ্জ পৌরসভা সহ উপজেলার মরিচা, মোহনপুর ভোগনগর, মোহাম্মদপুর, নিজপাড়া, সুজালপুর, পাল্টাপুর, শতগ্রাম, পলাশবাড়ী ও শিবরামপুর ইউনিয়ন সমুহের বিভিন্ন মৌজায় জমিতে বোরো চারা (রোপা) লাগানো শুরু হয়ে গেছে। জমিতে বোরো চারা (রোপা) লাগানোর কাজে পুরুষ কৃষি শ্রমিকের পাশাপাশি মহিলা শ্রমিক মাঠে কাজ করে আসছিল।

কৃষকেরা জানান, পুরুষ কৃষি শ্রমিকের পাশাপাশি মহিলা শ্রমিক মাঠে বোরো চারা (রোপা) লাগানোর কাজে মাঠে বেশী ভাল কাজ করছে এবং মুজুরীও কম। প্রতিদিন সকাল (১০টা থেকে বিকেল ৩টা) পর্যন্ত একজন পুরুষ কৃষি শ্রমিকের বিপরিতে ৩৫০/-৪০০/-টাকা মুজুরী দিতে হয়। আর একজন মহিলা কৃষি শ্রমিকের সকাল (৮ থেকে বিকেল ৪টা) পর্যন্ত কাজের বিপরিতে ২৫০/-৩০০/-টাকা মুজুরী দিলেই তারা খুশী।

উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান জানান, চলতি বোরো মৌসুমে ১৪ হাজার ২৫০ হেক্টর জমিতে আগাম জাতের বোরো চারা (রোপা) লাগানোর কাজ শুরু করা হয়েছে। এপ্রিল মাস পর্যন্ত বিভিন্ন জাতের বোরো চারা (রোপা) লাগানোর কাজ চলতে পারে তবে আগাম বোরো চাষে রোগ বালাই কম হবে। বর্তমানে আবহাওয়া অনুকুলে রয়েছে সময় মত রাসায়ানিক সার ও কীট নাশক প্রয়োগ করলে আশানুরুপ ফলন ফলতে পারে বলে আশাবাদ ব্যাক্ত করেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য