গাইবান্ধায় শ্যামলী পরিবহনের চাপায় দুইজন নিহতগাইবান্ধায় যাত্রীবাহী শ্যামলী পরিবহনের চাপায় রিক্সাভ্যানে থাকা দুইজন যাত্রী নিহত হয়েছেন। গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ-দিনাজপুর আঞ্চলিক মহাসড়কে মঙ্গলবার দিবাগত রাত পৌনে ১০টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শ্যামলী পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী কোচ গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার বাগদা বাজার (ইউনিয়ন ভুমি অফিস সংলগ্ন) এলাকায় ভ্যানটিকে চাপা দেয়। এ সময় ঘটনাস্থলে দুই রিক্সাভ্যান যাত্রী নিহত হন। এ সময় রিক্সাভ্যান চালকসহ তিনজন আহত হন।

এ ঘটনায় ঘাতক কোচ চালক ও তার সহকারীকে এলাকাবাসী আটক করে পুলিশকে সোপর্দ করে।

নিহতরা হলেন, গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার কাঠালবাড়ি গ্রামের জয়নাল মিয়ার ছেলে আজাহার আলী (৪২) এবং একই উপজেলার দুধিয়া গ্রামের আব্দুস সামাদের ছেলে ইমরান মিয়া (১৯)।

গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. মিজানুর রহমান জানান, ‘গুরুতর আহত আব্দুস সামাদ মিয়া, আশাদুল ইসলাম ও আশরাফুল ইসলামকে উদ্ধার করে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে দেয় এলাকাবাসী। কিন্তু এখানে তাদের অবস্থার আরও অবনতি হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।’

গোবিন্দগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) আফজাল হোসেন জানান, ‘উপজেলার বাগদা বাজার থেকে ব্যাটারীচালিত একটি রিক্সাভ্যানযোগে করে ৪ জন হাটুরে কাঠারবাড়ী গ্রামে ফিরছিলেন। পথে ওই এলাকায় রিক্সাভ্যানটি এই আঞ্চলিক মহাসড়ক থেকে গ্রামীণ মাটির সড়কে নামার সময় বাঁম পাশ থেকে দিনাজপুর থেকে ছেড়ে আসা ঢাকাগামী কোচটি চাপা দেয়। এতে দুই রিক্সাভ্যান যাত্রী নিহত হন। আহত হন আরও তিনজন। এ সময় ঘাতক কোচের চালক ও তার সহকারীকে এলাকাবাসী আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।’

তিনি আরও জানান, ‘চালক বেপরোয়া গতিতে বাস চালাচ্ছিল। নিহত দুইজনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ঘাতক কোচ চালক ও তার সহকারীকে থানায় আনা হয়েছে। থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।’

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য