সিরিয়ায় ইরানি ঘাটিতে আঘাত হানছে ইসরাইলসিরিয়ায় ইরানি সামরিক স্থাপনা লক্ষ্য করে আঘাত হানতে শুরু করেছে ইসরাইল। দেশটির প্রতিরক্ষা বাহিনী বলছে, তারা ইরানি রেভ্যুরশনারি গার্ডের একটি এলিট ইউনিট ‘কুদস ফোর্স’ এর বিরুদ্ধে এই অভিযান চালাচ্ছে। তবে হামলার ব্যাপারে বিস্তারিত কোনো তথ্য প্রকাশ করা হয়নি। খবর বিবিসির।

সিরিয়ান গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, আকাশপথে ইসরাইলের একটি হামলার জবাব দিয়েছে দেশটি। রবিবার ইসরাইলের প্রতিরক্ষা বাহিনী জানিয়েছে, গোলান অঞ্চলে তারা একটি রকেট ভুপাতিত করতে করেছে। তারা বলছে, আমরা সিরিয়া ভূখণ্ডে কুদসকে লক্ষ্য করে আঘাত হানছি। একইসঙ্গে ইসরাইলের নিরাপত্তার জন্য হুমকিস্বরূপ যে কোনো তৎপরতার বিষয়ে সিরিয়ান সেনাবাহিনীকে সতর্ক করে দিয়েছি।

সিরিয়ার রাষ্ট্র নিয়ন্ত্রিত সংবাদ সংস্থা সানা দেশটির সেনা সূত্রের বরাত দিয়ে বলেছে, শত্রুপক্ষের বেশিরভাগ ক্ষেপনাস্ত্র তারা ভূপাতিত করতে সক্ষম হয়েছে।

যুক্তরাজ্যভিত্তিক সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস (এসওএইচআর) বলছে, ইসরাইলি রকেট সমূহ রাজধানী দামেস্ক ও এর আশপাশের এলাকাগুলোকে টার্টেগ করেছে। রাজধানীর দামেস্কের প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছে, তারা রাতে উর্ধ্ব আকাশে বিষ্ফোরণের শব্দ শুনছে।

এসওএইচআর আরও বলেছে, ইসরাইলি ক্ষেপনাস্ত্র সমূহ ইরানি সেনবাহিনীর রাখা অস্ত্রাগার ও ইরান সমর্থিত হিজবুল্লাহর ঘাটি সমূহ গুড়িয়ে দিয়েছে। সেখানে কিছু হতাহতের ঘটনাও ঘটেছে।
গোলান অঞ্চলে ইরানি রকেট ভূপাতিত করার পর নেতানিয়াহু এই ধরনের অভিযানের হুমকি দিয়েছিলেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য