Nirjatonদিনাজপুর সংবাদাতাঃ বিরলে জ্বালানী সংগ্রহ করার সময় বাঁশ কাটার মিথ্যা অপবাদ দিয়ে এক ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠি (আদিবাসী) শিশু কন্যাকে অমানুষিক ভাবে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। আহত ঐ শিশু বিরল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি রয়েছে।

জানা গেছে, গত বুধবার দুপুরে বিরল উপজেলার ৩ নং ধামইড় ইউপি’র নেহাল গ্রামের ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠি (আদিবাসী) রতন ঋষির শিশু কন্যা কবিতা ঋষি (১১) সমবয়সী অপর দুই শিশুকে সাথে নিয়ে বাড়ীর পাশে একটি বাঁশ বাগানে জ্বালানী (খড়ি) সংগ্রহ করতে গেলে বাঁশ বাগানের মালিক পার্শ্ববর্তী রামচন্দ্রপুর গ্রামের মৃতঃ ধুমালু চন্দ্র রায়ের পুত্র অনীল চন্দ্র রায় (২৮) বাঁশ কাটার মিথ্যা অপবাদ দিয়ে শিশু তিন জনকে ধাওয়া করে।

এ সময় অপর দুই শিশু পালিয়ে যেতে সক্ষম হলেও শিশু কবিতাকে আটক করে অমানুষিক ভাবে নির্যাতন করে অনীল চন্দ্র।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আনন্দ চন্দ্র রায় ঘটনার বিষয় নিশ্চিত করে জানান, ঘটনাটি শুনেছি, উভয় পক্ষের সম্মতি পেলে বিষয়টি মিমাংসা করা হবে।

এদিকে ঘটনার পর থেকেই শিশু কবিতা ঋষি বিরল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছে। এরিপোর্ট লেখা পর্যন্ত শিশু কবিতার পক্ষ থেকে বিরল থানায় অভিযোগ দাখিলের প্রস্তুতি চলছিল।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য