02 19 19

মঙ্গলবার, ১৯শে ফেব্রুয়ারী, ২০১৯ ইং | ৭ই ফাল্গুন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১৩ই জমাদিউস-সানি, ১৪৪০ হিজরী

Home - মেইন স্লাইড - উলিপুরে ঘন কুয়াশায় নষ্ট হয়ে যাচ্ছে বোরো বীজতলা

উলিপুরে ঘন কুয়াশায় নষ্ট হয়ে যাচ্ছে বোরো বীজতলা

উলিপুরে ঘন কুয়াশায় নষ্ট হয়ে যাচ্ছে বোরো বীজতলাকুড়িগ্রামের উলিপুরে কনকনে ঠান্ডা আর ঘন কুয়াশায় বোরো বীজতলা নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। বীজতলার চারাগাছ গুলো লালচে রং ও পঁচন রোগ দেখা দেয়ায় চলতি বোরো মৌসুমে চারা সংকটের আশংকা করছেন কৃষকরা। এ অবস্থায় অনেক কৃষক কৃষি বিভাগের পরামর্শে বীজতলা পলিথিন দিয়ে ঢেকে রেখে তা রক্ষার চেষ্টা করছেন।

App DinajpurNews Gif

উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা গেছে, চলতি বোরো মৌসুমে উপজেলার ১ হাজার ৩’শ ৯৫ হেক্টর জমিতে বোরো বীজ তলা তৈরির লক্ষ্যমাত্র নির্ধারণ করা হয়েছে।

এর মধ্যে বোরো উফশী ১ হাজার ২৫ হেক্টর, হাইব্রিড ৩’শ ৫৫ হেক্টর ও স্থানীয় জাতের ১৫ হেক্টর জমিতে বোরো বীজতলা তৈরি করা হয়েছে। যা দিয়ে ২১ হাজার ৪’শ ৪৫ হেক্টর জমিতে বোরো চাষাবাদ করে ৮৭ হাজার ৮’শ ৬ মেট্রিক টন ধান উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। গত মৌসুমে ধান উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ছিল ২০ হাজার ৪’শ ৮০ হেক্টর জমিতে ৮৩ হাজার ৯’শ ২৯ মেট্রিক টন।

আজ বুধবার উপজেলার ধামশ্রেণী এলাকার কৃষক আমিনুল ইসলাম, মোজাম্মেল হক, বাদশা মিয়া, আব্দুল কাদেরের সাথে কথা হলে তারা জানান, গত কয়েকদিনের শীত ও কনকনে ঠান্ডার কারণে বীজ তলার চারা গাছ গুলো শুকিয়ে নষ্ট হয়ে যাচ্ছে।

উপজেলার দলদলিয়া ইউনিয়নের বর্গাচাষি আব্দুল হাই,আলতাফ জানান, হঠাৎ করে বীজতলার চারা গাছ গুলো নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে বোরো বীজ তলার এ অবস্থা দেখা গেছে। এসব কৃষক জানান, কৃষি বিভাগের পরামর্শে সেচসহ ছত্রাক নাশক ঔষধ স্প্রে করা হচ্ছে।

উপজেলা কৃষি অফিসার সাইফুল ইসলাম বলেন, অতিরিক্ত ঠান্ডার কারণে কৃষকদের বীজতলা পলিথিন দিয়ে ঢেকে রাখা এবং পরিমাণ মত সার ও পানি দেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য