দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুরে নাশকতা মামলায় ৭ জামায়াত-শিবির ক্যাডারদের বিচারক জামিন নামঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরণের আদেশ প্রদান করেন।

দিনাজপুর পুলিশ কোর্ট পরিদর্শক মোঃ রবিউল ইসলাম জানান, আজ মঙ্গলবার দুপুর ২টায় দিনাজপুরের অতিরিক্ত চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট বিশ্বনাথ মন্ডলের আদালতে জেলার নবাবগঞ্জ উপজেলার ৭ জামায়াত-শিবির ক্যাডার নাশকতা মামলার আসামী হিসেবে আত্মসমর্পন করে জামিনের আবেদন করে।

বিচারক তাদের আইনজীবীর বক্তব্য শ্রবণ করে ওই ৭ জামায়াত-শিবির ক্যাডারের জামিন আবেদন নাকচ করেন এবং সকল আসামীকে জেল হাজতে প্রেরণের আদেশ দেন।

বিচারকের আদেশের পর আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় কড়া পুলিশী নিরাপত্তায় ৭ জামায়াত-শিবির ক্যাডার হলেন নবাবগঞ্জ উপজেলার শালকুড়িয়া গ্রামের সাইদুর রহমান (২৭), ভাদুরিয়া বাজারের নবাব আলী (৫২) ও আব্দুল মালেক (৪৮), মল্লিকপুর গ্রামের শফিকুল ইসলাম (৩০) ও জাফর আলী (৫০), কৃষ্টপুর গ্রামের ময়েন উদ্দীন (৫৫) ও শামসুল আলম (২৮)কে দিনাজপুর জেলা কারাগারে পাঠানো হয়।

উল্লেখ্য যে, গত ২০১৫ সালের ১৪ জানুয়ারী রাত ৮টায় দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলার ভাদুরিয়া বাজারে জামায়াত-শিবির এবং বিএনপির ক্যাডারেরা পেঁয়াজ ভর্তি একটি ট্রাকে পেট্রোল বোমা নিক্ষেপ করে অগ্নিসংযোগ ও ভাংচুর চালায়। পেট্রোল বোমা নিক্ষেপের কারণে অগ্নিসংযোগে পেঁয়াজসহ ট্রাকের অধিকাংশ পুড়ে ক্ষতি সাধন হয়।

এই ঘটনায় ট্রাকের চালক নুরুল ইসলাম বাদী হয়ে নবাবগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করে। মামলাটির তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই আহসান হাবিব প্রায় ১৪ মাস তদন্ত করে ২০১৬ সালের মার্চ মাসে ৩৭ জন জামায়াত-বিএনপির ক্যাডারদের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনের ১৫(১) ও (৩) ধারায় আদালতে চার্জশীট পেশ করেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য