গাইবান্ধার ভন্ড ফকির রাসেলের প্রতারনার শিকার নিরীহ জনগণআরিফ উদ্দিন, গাইবান্ধা প্রতিনিধিঃ গাইবান্ধা সদর উপজেলা ঘাগোয়া ইউনিয়নের তালতলা গ্রামের ভন্ড ফকির রাসেলের ভন্ডামীর প্রতারনার শিকার হচ্ছে নিরীহ জনগণ। প্রতারিত জনগণ আইন প্রয়োগকারী সংস্থার হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

জানা গেছে, উক্ত এলাকার প্রতারক রাসেল দীর্ঘদিন ধরে জ্বীন হাজির করার নামে বুঝ-বুঝার কথা বলে বিভিন্ন এলাকার ফকিরালী, আইয়ুবেদিক ও কবিরাজী চিকিৎসা চালিয়ে যাচ্ছেন। ভন্ড ফকির রাসেল বিভিন্ন এলাকায় জ্বীন হাজির করার নামে বুঝ-বুঝা, ঝাড়-ফুঁক, দোয়া-তাবিজ, পানি পড়ার মাধ্যমে প্রেম-ভালবাসায় আবদ্ধ, হারানো জিনিসপত্র বাহির করাসহ বিভিন্ন জটিল ও কঠিন রোগের চিকিৎসা করা হয় বলে বিভিন্নভাবে প্রচারাভিযান চালান।

ফলে তার বাড়ীতে শনি ও মঙ্গলবার বুঝ-বুঝাসহ নানাবিধ রোগের চিকিৎসা নেয়ার জন্য শত শত লোকের সমাগম ঘটে। তার খপ্পরে পরে চিকিৎসা নিতে আসা শত শত লোক প্রতারিত হয়ে পথে বসেছেন। এ সুযোগে রাসেল অদৃশ্য শক্তির প্রভাবে তার ভন্ডামী ব্যবসা চালিয়ে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে।

এ ব্যাপারে ভন্ড ফকির রাসেলকে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেন, আমার কাছে ফকিরালীর কোন লাইসেন্স নাই। কিন্তু স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানের ট্রেড লাইসেন্স নিয়ে ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছি। এ ব্যাপারে ভূক্তভোগীরা আইন প্রয়োগকারী সংস্থার আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য