খাশোগি ইস্যুতে কথা বলতে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এখন তুরস্কেমার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও নিখোঁজ সৌদি সাংবাদিক জামাল খাসোগির বিষয়ে তুরস্কের নেতার সাথে কথা বলতে বুধবার আঙ্কারায় এসেছেন। খবর এএফপি’র।

এর আগে পম্পেও একই বিষয়ে কথা বলতে সৌদি আরব সফর করেন। সেখান থেকে তিনি আঙ্করায় আসেন। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তায়িফ এরদোগানের সাথে তার বৈঠকের কথা রয়েছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ১৫ অক্টোবর বলেছেন ‘বাদশাহ সালমানের সঙ্গে ফোনালাপের পর মনে হচ্ছে ভাড়াটে খুনিরাই খাশোগিকে খুন করেছে।’ ওই দিন সৌদি কনস্যুলেটে তল্লাশি অভিযান চালায় তুরস্কের ফরেনসিক পুলিশ।

অক্টোবরের ২ তারিখে ইস্তাম্বুলের সৌদি কনস্যুলেটে প্রবেশের পর নিখোঁজ হন ওয়াশিংটন পোস্ট পত্রিকার কলাম লেখক ও স্বেচ্ছা-নির্বাসিত সৌদি সাংবাদিক জামাল খাশোগি। তুরস্ক বলছে একইদিন সৌদি আরব থেকে ইস্তাম্বুল আসা সৌদি গোয়েন্দাদের ১৫ সদস্যের একটি দল কনস্যুলেটের ভেতরে ঢুকে খাশোগিকে খুন করেছে।

তবে সৌদি আরব অভিযোগ অস্বীকার করে বলছে, কাজ শেষে কনস্যুলেট ত্যাগ করেছেন খাশোগি। যদিও দাবির স্বপক্ষে কোন প্রমাণ হাজির করতে পারেনি দেশটি।

খাশোগি দীর্ঘদিন ধরে গ্রেপ্তার এড়াতে যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস করছিলেন। সৌদি রাজতন্ত্রের কঠোর সমালোচক ছিলেন তিনি।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য