পার্বতীপুরে দূর্ধর্ষ চুরি, ৩ নৈশ প্রহরী আটকদিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুরের পার্বতীপুরে ৯টি দোকানে দূর্ধর্ষ চুরি সংঘটিত হয়েছে। চোরেরা ধারালো দেশীয় অস্ত্রের মুখে বাজারের ৩ নৈশ প্রহরীকে বেঁধে রেখে দোকানগুলোর তালা ভেঙ্গে নগদ প্রায় চার লাখ টাকাসহ ১০ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।

আজ সোমবার ভোর রাত ৩টার দিকে উপজেলার হাবড়া ইউনিয়নের চৌপথি বাজারের এঘটনা ঘটে। পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বাজারের ৩ নৈশ প্রহরীকে আটক করেছে। এঘটনায় পার্বতীপুর মডেল থানায় চুরির মামলার প্রস্তুতি চলছিল।

সরজমিন সকাল ৯টায় ঘটনাস্থলে গিয়ে ৩ নৈশ প্রহরী আবুল কালাম, আলতাফ হোসেন ও ওবায়দুল হকের সাথে কথা বলে জানা গেছে, ২০/২৫ জনের সশস্ত্র একদল দুর্বৃত্ত সোমবার রাত ৩ টার দিকে একটি পিক-আপ নিয়ে চৌপথি বাজারে আসে। চোরেরা কৌশলে ৩ নৈশ প্রহরীকে কাছে ডেকে নিয়ে হাত-পা ও মুখ বেঁধে ফেলে। এরপর দোকান ঘরের তালা ভেঙ্গে লুটপাট চালায়।

হাবড়া ইউনিয়নের ১নং প্যানেল চেয়ারম্যান মকসেদ আলী জানান- ভোর সাড়ে ৪ টার দিকে মোবাইলফোনে চুরির খবর পেয়ে তিনি চৌপথি বাজারে গিয়ে দেখতে পান ৩ নৈশ প্রহরী চুপচাপ বসে আছেন। তাদের হাতপা কোন কিছুই বাধাঁ নেই। বাজারে কী হয়েছে জানতে চাইলে নৈশ প্রহরীরা তাকে সংঘটিত চুরির ঘটনার বর্ণনা দেয়।

পার্বতীপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোখলেছুর রহমান জানান, খবর পেয়ে সোমবার সকাল ৯ টার দিকে ফোর্স নিয়ে তিনি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নৈশ প্রহরী আবুল কালাম, আলতাফ ও ওবায়দুল হককে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য