অভিবাসীবাহী ট্রাক খাদে পড়ে তুরস্কে নিহত ১৯অভিবাসীদের বহন করা একটি খাদে পড়ে তুরস্কের পশ্চিমাঞ্চলীয় ইজমির প্রদেশে শিশুসহ ১৯ জন নিহত হয়েছে। দেশটির রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা আনাদোলু জানিয়েছে, রবিবার একটি হাইওয়ের দেয়ালে ধাক্কা খেয়ে ছাদ খোলা ট্রাকটি ২০ মিটার নিচে খাদে পড়ে গেলে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

বেসরকারি বার্তা সংস্থা দেমিরোরেন (ডিএইচএ) জানিয়েছে, ট্রাকের যাত্রীরা ছিলেন অভিবাসী। ইজমিরের দক্ষিণ উপকূল থেকে নৌপথে গ্রীসের সামোস দ্বীপে পৌঁছাতে তারা পাচারকারীদের সঙ্গে চুক্তি করেছিলেন। তবে এসব অভিবাসীরা কোন দেশের তা এখনও পরিস্কার নয়।

মধ্যপ্রাচ্য ও আফ্রিকার সংঘাত এবং দারিদ্র থেকে বাঁচতে ২০১৫ সালে ইউরোপীয় এলাকায় পৌঁছানোর চেষ্টা করা লাখ লাখ অভিবাসীর মূল রওনা কেন্দ্র হয়ে পড়ে তুরস্ক। তুর্কি উপকূল থেকে কয়েক মাইল দূরের গ্রীক দ্বীপে পৌঁছানোর পথে সাগরে ডুবে শত শত অভিবাসীর মৃত্যু হলে ২০১৬ সালে আঙ্কারা ও ইইউ এর মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। ওই চুক্তির পর অভিবাসীদের স্রোত নাটকীয়ভাবে কমে আসে।

বার্তা সংস্থা ডিএইচএ জানিয়েছে, স্থানীয় সময় বেলা আটটার দিকে গাজিয়েমির জেলায় ট্রাকটির চালক নিয়ন্ত্রণ হারায়। এরপরেই সেটি রাস্তার দেয়ালে ধাক্কা দিয়ে খাদে পড়ে যায়। মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএন’র প্রতিনিধি ঘটনাস্থল থেকে জানিয়েছেন জরুরি কর্মীরা ঘটনাস্থল থেকে মৃতদেহ এবং চাপা পড়া আহতদের উদ্ধারের চেষ্টা চালাচ্ছেন।

ডিএইচএ বলছে, এই ঘটনায় ট্রাকটির চালকসহ পাঁচজন মারাত্মক আহত হয়েছে। তবে আনাদোলু বলছে, আহত ১১ জনকে অ্যাম্বুলেন্সে করে কাছের হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য