ইয়েমেনে যৌথ বাহিনীর বিমান হামলায় ১৫ হুথি বিদ্রোহী নিহতসৌদি আরব ও আমিরাতের যৌথ বাহিনীর বিমান হামলায় ১৫ জন হুথি বিদ্রোহী নিহত হয়েছে। ইরান সমর্থিত বিদ্রোহী গোষ্ঠীটির দাবি হোদাইদা বন্দর ও রাজধানী সানার সংযোগকারী কৌশলগত গুরুত্বপূর্ণ মহাসড়কে এই বিমান হামলা চালানো হয় বলে জানিয়েছে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা।

ইয়েমেনের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ বন্দর হোদাইদার নিয়ন্ত্রণ নিতে গত জুন থেকে হামলা জোরালো করেছে সৌদি ও আমিরাতের জোট। ২০১৪ সাল থেকে বন্দরটির নিয়ন্ত্রণ ধরে রেখেছে হুথি বিদ্রোহীরা।

শুক্রবার হুথিদের পরিচালিত আল মসরিহ টেলিভিশনের খবরে বলা হয়, বৃহস্পতিবার কিলো ১৬ নামের মহাসড়কটিতে বিমান হামলা চালানো হয়। ওই হামলায় আরও ২০ জন আহত হয়েছে।

জাতিসংঘের সংস্থা সেভ দ্য চিলড্রেনের মানবিক নীতি বিষয়ক উপদেষ্টা আমান্দা ব্রাইডন বলেছেন, মানবিক সহায়তা আনা নেওয়ার জন্য মহাসড়ক ১৬ খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তিনি বলেন, ‘হোদাইদা বন্দর বাকি দেশের জন্য লাইফলাইন। দেশটির বাণিজ্যিক আমদানির ৮০ শতাংশ এই বন্দর দিয়েই আসে।’

রিয়াদ ও আবু ধাবি মনে থাকে এই বন্দরের আয় দিয়ে হুথি বিদ্রোহীরা ইরান থেকে অস্ত্র সংগ্রহ করে থাকে।

বৃহস্পতিবারের এই হামলার পর জাতিসংঘ সর্বশেষ সতর্কতা দিয়ে বলেছে, দারিদ্রপীড়িত দেশটিকে চলমান সহিংসতা দুর্ভিক্ষের দিকে ঠেলে দিতে পারে। সংস্থাটির হিসাবে দেশটিতে ৮৪ লাখ মানুষ খাদ্যের অভাবে ভুগছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য