দিনাজপুরে পিস্তল,২ রাউন্ড গুলি ও ১টি ম্যাগজিনসহ ১ জন গ্রেফতার প্রতিবাদে থানা ঘেরাওদিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুর শহরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে ১টি অত্যাধুনিক পিস্তল, ২ রাউন্ড গুলি ও ১টি ম্যাগজিনসহ ১ যুবককে গ্রেফতার করেছে। এই ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে কোতয়ালী থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদালতে ৭ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়েছে।

দিনাজপুর কোতয়ালী থানার অফিসার্স ইনচার্জ রেদওয়ানুর রহিম জানান, গতকাল রাত ৮ টায় শহরের দপ্তরীপাড়া মহল্লার আব্দুর রশিদ খালাসীর পুত্র সোহেল রানা (৩৩) এর বাড়ীতে পুলিশ অভিযান চালায়। এসময় সোহেলের নিকট থেকে ১টি অত্যাধুনিক ইউএসএ তৈরী পিস্তল, ২ রাউন্ড তাজা গুলি ও ১টি ম্যাগজিনসহ সোহেলকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত সোহেলকে পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে অস্ত্রটি সে নিজে সন্ত্রাসী কাজে ব্যবহৃত করত বলে স্বীকার করে। তার সহযোগী সন্ত্রাসীদের নাম প্রকাশ করেছে।

সোহেলকে ছাড়াতে দপ্তরি পাড়া, হঠাৎপাড়া ও বালুয়াডাঙ্গার বিক্ষুব্ধ জনতা দিনাজপুর কোতয়ালী থানা ঘেরাও করে রাখে। এলাকাবাসী দাবি করে তাকে অস্ত্র দিয়ে মিথ্যা মামলা দ্বার করিয়ে হয়রানির স্বীকার করা হচ্ছে। এর জের ধরে উক্ত এলাকার বিক্ষুব্ধ জনতা থানা ঘেরাও করে। তারা দাবী করে যে, মোঃ সোহেলের কাছে কোন অস্ত্র ছিল না। পুলিশ তাকে অস্ত্র দিয়ে ফাসিয়েছে এবং গত ২ দিন আগেও একটি মিথ্যা মামলায় জেল থেকে বেরিয়েছে সে।

তারা তাকে মিথ্যা মামলায় না ফাঁসানোর ঘোর দাবি জানান। সোহেলকে অস্ত্র দিয়ে আটকের প্রতিবাদে গত ২৭ আগষ্ট সোমবার রাতে কোতয়ালী থানা ঘেরাও করে সোহেলকে মিথ্যা মামলা দিয়ে চালান করা হচ্ছে বলে প্রতিবাদ জানায় এবং বিক্ষোভ প্রদর্শন করতে থাকে।

উত্তেজিত জনতা উক্ত এলাকাবাসী একপর্যায়ে কোতয়ালী থানার প্রদান গেট ভেঙ্গে ফেলার চেষ্টা করে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ বিক্ষুব্ধ জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে রাত সাড়ে ৯টায় লাঠিচার্জ করে। একপর্যায়ে বিক্ষুব্ধ জনতা কোতয়ালী থানা ছেড়ে চলে যায়। রাত ১০ টায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

আজ মঙ্গলবার সকালে কোতয়ালী থানার এসআই নয়ন চন্দ্র রায় বাদী হয়ে অস্ত্র আইনে ১৯ এর (চ) ও (ঙ) ধারায় সোহেলের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই সারোয়ার হোসেন আসামী সোহেল রানাকে আজ মঙ্গলবার বিকেল ৫টায় দিনাজপুর অতিরিক্ত চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট বিশ্বনাথ মন্ডলের আদালতে সোপর্দ করে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রিমান্ড আবেদন করেন।

দিনাজপুর কোর্ট পুলিশ পরিদর্শক মোঃ রবিউল ইসলাম জানান, বিচারক আগামীকাল বুধবার আসামী সোহেল রানার উপস্থিতিতে রিমান্ড শুনানির জন্য দিন ধার্য করে তাকে জেল হাজতে প্রেরণের আদেশ দেন। আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তাকে কড়া পুলিশ প্রহরায় দিনাজপুর জেল কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

দিনাজপুরের পুলিশ সুপার সৈয়দ আবু সায়েম জানান, অস্ত্রসহ গ্রেফতারকৃত আসামী সোহেল রানার বিরুদ্ধে গত ২০১৩ সালে তোফাজ্জল হোসেন নামে এক ব্যক্তিকে হত্যার মামলা চার্জশীটভুক্ত আসামী রয়েছে। গত ২০১৭ সালের মার্চ মাসের র‌্যাব সদস্যদের অভিযানে একটি অস্ত্রসহ তাকে আটক করা হয়। এ দুটি মামলায় উচ্চতর আদালত থেকে সোহেল জামিনে মুক্ত রয়েছে। তার বিরুদ্ধে পুলিশের গোপন অনুসন্ধানে নিশ্চিত হয়ে অস্ত্রসহ তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

 

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য