৪ দিনের রিমান্ডে অভিনেত্রী নওশাবাঅভিনেত্রী ও মডলে কাজী নওশাবা আহমেদের চার দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন হাইকোর্ট। আজ রোববার দুপুরে বিচারপতি মাজহারুল হক এই রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে দুপুর ২টার দিকে রাজধানীর উত্তরা পশ্চিম থানার উপপরিদর্শক (এস আই ) বিকাশ কুমার পাল আদালতে সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করেন।

আমাদের সময়কে রিমান্ড আবেদনের বিষয়টি নিশ্চিত করেন পুলিশের এই এসআই। নওশাবার বিরুদ্ধে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনে আজ দুপুরেই উত্তরা পশ্চিম থানায় মামলা হয়।

গতকাল শনিবার রাতে উত্তরা থেকে নওশাবাকে আটক করে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)।

র‌্যাব জানায়, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে গুজব ছড়ানোর অভিযোগে অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। নওশাবা নিজের দোষ স্বীকার করে জবানবন্দি দিয়েছেন।

নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের চলমান আন্দোলনকে ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার উদ্দেশ্যে ফেসবুক লাইভে গুজব ছড়ান তিনি। রুদ্র নামে এক তরুণের প্ররোচনায় এই কাজ করেছেন বলে নওশাবা জানিয়েছে।

এর আগে শনিবার বিকেল ৪টার দিকে চলমান আন্দোলনকে ইঙ্গিত করে ফেসবুক লাইভে নওশাবা বলেন, ‘জিগাতলায় আমাদের ছোট ভাইদের (শিক্ষার্থী ইঙ্গিত করে) একজনের চোখ তুলে ফেলা ও চারজনকে মেরে ফেলা হয়েছে। একটু আগে ওদেরকে অ্যাটাক করা হয়েছে। ছাত্র লীগের ছেলেরা সেটা করেছে। প্লিজ-প্লিজ ওদেরকে বাঁচান। তারা জিগাতলায় আছে।

আপনারা এখনই রাস্তায় নামবেন ও আপনাদের বাচ্চাদের নিরাপদ জায়গায় নিয়ে যাবেন, এটা আমার রিকোয়েস্ট। বাচ্চাগুলো নিরাপত্তাহীনতায় আছে। যে পুলিশরা আছেন আপনারা অবশ্যই নিজেদের বাচ্চাদের প্রোটেকশন দেন। আপনারা প্লিজ কিছু একটা করেন। আপনারা সবাই একসাথে হোন। আমি এ দেশের মানুষ, এ দেশের নাগরিক হিসেবে আপনাদের কাছে রিকোয়েস্ট করছি।’

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য