সোনার বিনিময়ে তেল বিক্রি করবে ইরানআফ্রিকার দেশগুলোর কাছে সোনার বিনিময়ে জ্বালানি তেল ও তেলজাত পণ্য বিক্রি করবে ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরান। তেহরানের বিরুদ্ধে যখন মার্কিন সরকার কঠোর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করার দ্বারপ্রান্তে রয়েছে তখন অন্য দেশের সঙ্গে ইরান নিজের বাণিজ্য ঠিক রাখার জন্য এমন চিন্তা করছে।

ইরান-আফ্রিকা কাউন্সিল ফর ইকনোমিক কোঅপারেশনের সভাপতি হাসান খোশরুজেরদির বরাত দিয়ে ইরানের গণমাধ্যম এ খবর দিয়েছে। তিনি মনে করেন, মার্কিন নিষেধাজ্ঞা ইরানের জন্য বড় রকমের চ্যালেঞ্জ সৃষ্টি করতে পারে; সেই চ্যালেঞ্জ এড়ানোর জন্য পণ্যের বিনিময়ে পণ্য বিক্রির ব্যবস্থা নেয়ার চিন্তা করা হচ্ছে। আফ্রিকাসহ বিভিন্ন দেশের সঙ্গে এমন বিনিময় হতে পারে বলে তিনি জানান।

রাজধানী তেহরানে অনুষ্ঠিত একটি ফোরামে খোশরুজেরদি এসব কথা বলেন। ওই ফোরামে যোগ দিয়েছে কেনিয়া, আলজেরিয়া, আইভরিকোস্ট, মৌরিতানিয়া ও ঘানা। তিনি বলেন, যখন নিষেধাজ্ঞা ফিরে আসছে তখন বিভিন্ন দেশের সঙ্গে পণ্যের বিনিময়ে পণ্য বিক্রির মাধ্যমে বাণিজ্য চালিয়ে যাওয়াই সবচেয়ে ভালো সমাধান।

খোশরুজেরদি বলেন, আফ্রিকার দেশগুলো থেকে ইরান সোনা নেয়ার বিষয়ে আগ্রহী। এছাড়া, গোশত ও কৃষিজাত পণ্য নিতেও আগ্রহী ইরান। তবে পণ্যের বিনিময়ে বাণিজ্য করার জন্য তিনি সুনির্দিষ্ট কোনো দেশের নাম উল্লেখ করেন নি। ঘানা হচ্ছে আফ্রিকার দ্বিতীয় প্রধান স্বর্ণ উৎপাদনকারী দেশ এবং এটা হতে পারে ইরানের প্রধান টার্গেট। এর আগের রিপোর্ট অনুসারে ঘানাতে বিপুল পরিমাণ তেল ও তেলজাত পণ্য রপ্তানি করছে ইরান।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য