এবার আয়েশা’র সঙ্গে ফারুকীগুণী নির্মাতা মোস্তফা সরয়ার ফারুকী ও অভিনেত্রী নুসরাত ইমরোজ তিশা ঢালিউডের জনপ্রিয় দম্পতি। ২০১০ সালের ১৬ জুলাই ভালোবেসে বিয়ে করেন তারা।

আজ তাদের বিবাহিত জীবনের আট বছর পূর্ণ হয়েছে। আর বৈবাহিক জীবনের ৮ বছর পর একই দিনে এসে তিশার সঙ্গে কাজের মধ্য দিয়ে তাদের প্রথম পরিচয়, প্রেম ও বিয়ের কথা স্মরণ করে ফারুকী তার ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন।

ফারুকী তার স্ট্যাটাসে লিখেছেন, ‘আমাদের প্রথম সাক্ষাৎ শুটিং সেটে। আমরা বিয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছি, সেটাও সেটে। বিবাহবার্ষিকী উদযাপনের জন্য সেটের চেয়ে ভালো জায়গা আর কি হতে পারে!’

ফারুকী আজ তিশাকে নিয়ে ‘আয়েশা মঙ্গল’ নামে একটি টিভি ফিকশন নির্মাণ করছেন। আনিসুল হকের রচনায় ফিকশন নির্মাণের মধ্য দিয়ে প্রায় এক যুগ পর টেলিভিশনের জন্য নির্মাণে আসলেন ফারুকী।

ফারুকী আরও লিখেছেন, ‘একসঙ্গে দারুণভাবে আটটি বছর কেটে গেছে ছোটখাট বিষয় ও সৃজনশীল কাজ মিলিয়ে। আমি জানি আমাদের বিষয়টি অনন্য কিছু নয়, সারাবিশ্বের অনেক মহান চলচ্চিত্র নির্মাতা ও অভিনেত্রী এমন জোড় বেঁধেছেন। কিন্তু পেছনে ফিরে দেখতে খুব ভালো লাগে এবং দেখি যখন একসাথে কাজ করি তখন আমরা কীভাবে একে অপরের পরিপূরক ও অনুপ্রেরণা।’

‘আমি অনুভব করি জাদুকরী কিছু ঘটেছে, কিছুটা বিদ্যুৎ স্ফুলিঙ্গের মতো। সম্ভবত কাজের মাধ্যমে আমাদের রোমান্স জমাট বাঁধে এবং রোমান্সের মাধ্যমে কাজ জমে ওঠে। যা দেখা যায় থার্ড পারসন সিঙ্গুলার নাম্বার, টেলিভিশন, নো বেড অব রোজেস এ। আশা করি ‘স্যাটারডে আফটারনুন’-এ পৃথিবী এই সুঘ্রাণ পাবে’ বলেও স্ট্যাটাসে লিখেন এই নির্মাতা।

উল্লেখ্য, ফারুকী পরিচালিত ‘পারাপার’ টেলিফিল্মের কাজ করতে গিয়ে তিশার সঙ্গে চেনাজানা হয়। ‘সিক্সটি নাইন’ নাটক করতে গিয়ে বন্ধুত্ব। বন্ধুত্ব থেকে প্রেম এবং দীর্ঘদিন প্রেম করার পর বিয়ে করেন ফারুকী ও তিশা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য