শান্তি আলোচনা অব্যাহত রাখার প্রতিশ্রুতি মিয়ানমারের সাত সশস্ত্র দলেরমিয়ানমারের সাতটি সশস্ত্র গ্রুপ সরকারের সঙ্গে শান্তি আলোচনা অব্যাহত রাখার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। তারা বলেছে, নেপিদোর একুশ শতাব্দীর পেংলং শান্তি সম্মেলনে মিয়ানমার সরকারের দেয়া বার্তার বিষয়ে তারা আলোচনা করবে। সরকারি সংবাদ মাধ্যমের বরাত দিয়ে রবিবার বার্তা সংস্থা সিনহুয়া একথা জানায়।

সরকারি গ্লোবাল নিউ লাইট অব মিয়ানমার জানায়, বুধবার শুরু হওয়া ছয় দিনব্যাপী পেংলং শান্তি সম্মেলনের তৃতীয় অধিবেশনে চতুর্থ দিন শনিবার পর্যন্ত উত্তরাঞ্চলের জোটভুক্ত সাতটি গ্রুপ অংশ নেয়।

জোটভুক্ত গ্রুপগুলো হলো- কাচিন ইন্ডিপেনডেন্স অর্গানাইজেশন (কেআইও), দি ইউনাইটেড ওয়া স্টেট আর্মি (ইউডব্লিউএসএ), শান স্টেট প্রোগ্রেসিভ পার্টি (এসএসপিপি), মোঙ্গলাস ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক এলায়েন্স আর্মি (এনডিএএ), কোকাং’স মিয়ানমার ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক এলায়েন্স আর্মি (এমএনডিএএ), আং ন্যাশনাল লিবারেশন আর্মি (টিএনএলএ) এবং আরাকান আর্মি (এএ)।

২০১৫ সালে মিয়ানমারের ১০টি সশস্ত্র গ্রুপ সরকারের সঙ্গে ‘ন্যাশনওয়াইড সিজফায়ার একর্ড’ (এনসিএ)-এ স্বাক্ষর করে। কিন্তু এই সাতটি সশস্ত্র গ্রুপ তখন ওই চুক্তিতে স্বাক্ষর করেনি।

কাচিন ইন্ডিপেনডেন্স অর্গানাইজেশন (কেআইও)-এর ভাইস-চেয়ারম্যান গান মাও প্রতিশ্রুতি দিয়ে বলেন, সশস্ত্র গ্রুপগুলো পুনরায় শান্তি প্রক্রিয়ায় ফিরে আসতে সচেষ্ট থাকবে।

সম্মেলনের ফাঁকে সশস্ত্র গ্রুপগুলোর প্রতিনিধিরা শান্তি সম্মেলনের চেয়ারম্যান তিন মিউ উইন, স্টেট কাউন্সিলর অং সান সুচি এবং প্রতিরক্ষার বিভাগের প্রধান সেন-জিন মিন অং হেলিং এর সঙ্গে পৃথকভাবে সাক্ষাৎ করেন। বাসস।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য