অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ডের একটি সড়কে গলিত বিটুমিনের কারণে উঠে আসা পিচ টায়ারের সঙ্গে লেপ্টে যাওয়ায় অনেক চালকই তাদের গাড়ি রাস্তায় ফেলে রেখে যেতে বাধ্য হয়েছেন বলে জানা গেছে।

মঙ্গলবারের এ ঘটনায় সর্বোচ্চ ৫০ জন চালক ও যাত্রীকে ক্ষতিপূরণ দেওয়া লাগতে পারে বলে স্থানীয় গণমাধ্যমগুলোর প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।

যে সড়কে গাড়িগুলো ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে সেটি কেয়ার্নস শহরের দক্ষিণে আথারটন টেবলল্যান্ডসে অবস্থিত বলে জানিয়েছে বিবিসি।

অভাবিত এ ঘটনায় বিস্ময় প্রকাশ করেছেন স্থানীয় মেয়র জো পারোনেলা।

“আমি এরকমটা কখনোই দেখিনি। যখন গতকাল থেকে এ ধরনের খবর আসা শুরু হল, তা ছিল অবিশ্বাস্য,” সংবাদমাধ্যমে এবিসিকে এমনটাই বলেছেন তিনি।

আবহাওয়ার পরিবর্তনজনিত কারণে রাস্তাটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে ধারণা অনেকের।

স্থানীয় এক বাসিন্দা জানান, কয়েকদিনের ঠাণ্ডা ও বৃষ্টির পর হঠাৎ গরমের কারণে আলকাতরা ও পিচের বড় বড় টুকরা গাড়িগুলোর সঙ্গে লেপ্টে যাচ্ছে।

“সপ্তাহখানেক দমকা বাতাসের পর যখনই সূর্য দেখা দিল, তার পর থেকেই পিচ উঠে যাওয়া শুরু করল,” কুরিয়ার মেইলকে এমনটাই বলেছেন দেবোরাহ স্টেসি।

এর ফলে অনেক গাড়িরই টায়ার বদলাতে হবে; উঠে আসা পিচ গাড়িগুলোর বাম্পার বার ও প্যানেলেরও ক্ষতি করেছে। ক্ষতিগ্রস্ত গাড়ির চালকদের ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে বলে জানিয়েছে কুইন্সল্যান্ডের পরিবহন ও প্রধান সড়ক কর্তৃপক্ষ।

এসব ঘটনার পর আথারটন টেবলল্যান্ডসের ওই সড়কটি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য