আরিফ উদ্দিন, গাইবান্ধা থেকেঃ গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার তারাপুর গ্রাম থেকে অপহৃত শিশু অপহরণের তিনদিন পর রংপুরের তারাগঞ্জ বাজার থেকে মঙ্গলবার ভোরে গাইবান্ধা পিবিআই শিশু রিফাত হোসেন জিমকে (৭) উদ্ধার এবং অপহরণকারি তপন চন্দ্র রায় ওরফে শফিকুলকে আটক করে। এ ঘটনায় পিবিআই এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে অপহরণকারি শফিকুল আটক ও জিমকে উদ্ধারের বিষয়টি সাংবাদিকদের জানান।

পিবিআই এর সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানা গেছে, রংপুর কোতয়ালী থানার বেনুঘাট মাঝাপাড়া এলাকার অপহরণকারি তপন চন্দ্র রায় ওরফে শফিকুল পূর্ব পরিচিত সুন্দরগঞ্জ উপজেলার তারাপুর গ্রামে আব্দুর রশিদের বাড়িতে গত ৩০ জুন বেড়াতে আসে যাত্রী যাপন করে।

পরদিন আব্দুর রশিদের শিশু ছেলে জিমকে নাস্তা খাওয়ার কথা বলে তাকে বাড়ির বাইরে নিয়ে যায় এবং নাস্তা খাওয়া শেষে বাড়িতে নিয়ে আসে। এসময় বৃষ্টি পড়তে থাকায় আব্দুর রশিদের স্ত্রী ও মেয়ে ঘুমিয়ে থাকলে শফিকুল বেড়ানোর কথা বলে শিশু জিমকে শফিকুলের ভগ্নিপতি লালমনিরহাট জেলায় নিয়ে যায়।

এরপর জিমকে খোঁজাখুজি করে কোথাও না পেয়ে সুন্দরগঞ্জ থানায় আব্দুর রশিদ একটি জিডি করে। পরদিন অপহরণকারি শফিকুল শিশু জিমের বাবা আব্দুর রশিদের মোবাইলে ফোন করে জিম তার কাছে জানায় এবং ১ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। মুক্তিপণ না দিলে ও বিষয়টি পুলিশকে জানালে জিমকে মেরে ফেলবে বলে হুমকি দেয়।

ফলে আব্দুর রশিদ বাধ্য হয়ে ৫ হাজার টাকা মুক্তিপণ হিসেবে শফিকুলকে বিকাশ করে পাঠায়। এদিকে জিডির সূত্র ধরে সুন্দরগঞ্জ থানা পুলিশ জিমকে উদ্ধারের জন্য গাইবান্ধা পিবিআইকে দায়িত্ব দেয়। পিবিআই গত ২ জুলাই ফোর্সসহ রংপুরের তারাগঞ্জ বাজার এলাকায় অভিযান চালিয়ে অপহরণকারি তপন চন্দ্র রায় ওরফে শফিকুলকে আটক এবং শিশু জিমকে উদ্ধার করে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য