দিনাজপুর সংবাদাতাঃ স্বামীর নির্যাতনের শিকার স্ত্রী টুম্পা শুক্রবার সন্ধায় দিনাজপুরের বীরগঞ্জ পৌর শহরের সিটি ক্লিনিকে ৮ মাসের মৃত ছেলে সন্তান জন্ম দেয়।

অভিযোগে জানা গেছে,দিনাজপুরের কাহারোল উপজেলার ঘাসিয়াড়া গ্রামের মুজাহার আলী তার মেয়ে টুম্পা বেগমকে সাথে ২০১৭ সালে ১ লক্ষ ৮০ হাজার টাকা যৌতুক দিয়ে ঠাকুরগাও জেলা সদরের নারগুন গ্রামের শাজাহান আলীর ছেলে বিনু মোহাম্মদের সাথে বিয়ে দেয়।বিয়ের পর থেকে আরো ২ লক্ষ টাকা যৌতুকের দাবীতে স্বামী বিনু, শশুর শাজাহান আলী টুম্পাকে শারিরিক নির্যাতন শুরু করে।

টুম্পা বেগমের গর্ভে ৮ মাসের সন্তান থাকা অবস্থায় গত ২০ জুন পুনরায় তাকে মারধর করে । টুম্পার পেটে লাত্থি দিলে টুম্পা জ্ঞান হারিয়ে ফেলে।সংবাদ পেয়ে টুম্পার বাবা মুজাহার আলী ২১ জুন সন্ধ্যায় জামাই বাড়ীতে গিয়ে অসুস্থ মেয়ে টুম্পা বেগমকে উদ্ধার করে বীরগঞ্জ পৌর শহরের সিটি ক্লিনিকে ভর্তি করে।

এসময় টুম্পা ক্লিনিকে ২২ জুন সন্ধায় একটি মৃত ছেলে সন্তানের জন্ম দেয়।

এ ঘটনায় মুজাহার আলী ন্যায় বিচারের স্বার্থে মামলার প্রস্তুতি নিয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য